kalerkantho

বুধবার । ১২ মাঘ ১৪২৮। ২৬ জানুয়ারি ২০২২। ২২ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

নাগাল্যান্ডে সেনাবাহিনীর বেপরোয়া গুলিতে নিরীহ ১৩ গ্রামবাসী নিহত

অনলাইন ডেস্ক   

৫ ডিসেম্বর, ২০২১ ১৬:৩৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নাগাল্যান্ডে সেনাবাহিনীর বেপরোয়া গুলিতে নিরীহ ১৩ গ্রামবাসী নিহত

ভারতের উত্তর-পূর্ব নাগাল্যান্ড রাজ্যে নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে ১৩ বেসামরিক ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে বলে জানা গেছে। আজ রবিবার পুলিশ জানায়, নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা প্রথমে একটি ট্রাক লক্ষ্য করে গুলি চালায়। ওই ঘটনায় নিহতের প্রতিবাদে বিক্ষোভকারীদের ওপর ফের চড়াও হয় নিরাপত্তা বাহিনী, গুলি চালায়। এ দুটি ঘটনায় সর্বমোট ১৩ জন মারা যায়।

বিজ্ঞাপন

 

জানা যায়, শনিবার বিকেলে মিয়ানমারের নিকটবর্তী মন শহরের ওই এলাকায় অবস্থানরত বিদ্রোহীদের ধরতে ওত পেতে ছিল নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা। এ সময় ওই রাস্তা দিয়ে ট্রাকে করে বাড়ি ফিরছিল একদল শ্রমিক। এ সময় তাদের বিদ্রোহী মনে করে গুলি চালায় নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা। এতে ছয়জন শ্রমিক নিহত হয়।  

নিখোঁজ শ্রমিকদের সন্ধানে সেই এলাকায় যায় তাদের পরিবারের সদস্য ও গ্রামবাসীরা। এ সময় তারা ওই শ্রমিকদের মহদেহ পায় এবং কি কারণে নিরাপরাধ ওই শ্রমিকদের তাদের হত্যা করা হয়েছে তা জানতে চায়।

নাগাল্যান্ড পুলিশ কর্মকর্তা সন্দীপ এম তামগাজে বার্তা সংস্থা এএফপিকে জানান, এ সময় উত্তেজনা বাড়তে থাকে। গ্রামবাসী এবং নিহতদের পরিবারের সদস্যরা বিক্ষোভ করতে থাকে। এর পর তাদের দমন করতে গুলি চালায় নিরাপত্তা বাহিনী। এতে আরো সাতজনের মৃত্যু হয়। তিনি আরো বলেন, পরিস্থিতি ভীষণ অশান্ত। দ্বিতীয় ঘটনায় গুরুতর আহত আরো ৯ বেসামরিককে স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

ভারতীয় সেনাবাহিনী এক বিবৃতিতে বলছে, এ ঘটনায় তাদের একজন সেনাসদস্যও নিহত হয়েছে। এবং অনেক সেনাসদস্য আহত হয়েছে। বিবৃতিতে আরো বলা হয়, সেনাবাহিনী নিশ্চিত ছিল যে ওই এলাকায় বিদ্রোহীরা অবস্থান করছে। তাদের আটকাতে অতর্কিত হামলা চালানো হয়। দুর্ভাগ্যজনক প্রাণহানির কারণটি সর্বোচ্চ পর্যায়ে তদন্ত করা হচ্ছে এবং আইন অনুযায়ী যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
সূত্র : ডিজিটাল জার্নাল



সাতদিনের সেরা