kalerkantho

শনিবার । ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ২৭ নভেম্বর ২০২১। ২১ রবিউস সানি ১৪৪৩

৭০ বছর বয়সে সন্তানের মা হলেন গুজরাটের যে নারী

অনলাইন ডেস্ক   

২১ অক্টোবর, ২০২১ ১৭:৩২ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



৭০ বছর বয়সে সন্তানের মা হলেন গুজরাটের যে নারী

সন্তানকে নিয়ে ৭০ বছর বয়সী জিভুবেন রাবারি।

৭০ বছর বয়সে সুস্থ সন্তানের মা হয়েছেন গুজরাটের এক নারী। সাধারণত যে বয়সে নারীদের নাতির সঙ্গে খেলাধুলা করতে দেখা যায় সেই বয়সে সন্তান জন্ম দিয়ে সবাইকে অবাক করে দেন কচ্ছ জেলার জিভুবেন রাবারি। এক মাস আগে সিজার অপারেশনের মাধ্যমে জন্ম নেওয়া সন্তানের নাম লালু রাখা হয়। টাইমস অব ইন্ডিয়া এ খবর জানায়। 

টাইমস অব ইন্ডিয়ার খবরে জানা যায়, রাপার তালুকা এলাকার মোরা গ্রামের বাসিন্দা জিভুবেন রাবারি ও ভালজিবাই রাবারির ৪৫ বছরের দাম্পত্য জীবন চলছিল। কিন্তু দীর্ঘ এ সময়ে তাদের কোনো সন্তান হয়নি। এবারই প্রথম পুত্র সন্তান পেয়ে তাদের আনন্দের সীমা নেই। প্রথম দিকে চিকিৎসকদের জন্য ব্যাপারটি বড়ই চ্যালেঞ্জের ছিল। কিন্তু জিভুবেনের দৃঢ় মনোভাব চিকিৎসকদের এগিয়ে যেতে উদ্বুদ্ধ করে। 

বয়স প্রমাণে তাদের কোনো কাগজপত্র ছিল না। জিভুবেন চিকিৎসকদের জানান যে তার বয়স ৬৫-৭০ বছরের মাঝামাঝি হবে। আইভিএফ-এর মাধ্যমে সন্তান নেওয়ার দৃঢ় আকাঙ্ক্ষার কথাও তিনি চিকিৎসকদের জানান। কিন্তু চিকিৎসকরা জিভুবেনকে এই বয়সে গর্ভাধারণের ঝুঁকি না নেওয়ার পরামর্শ দিলেও সন্তানের ব্যাপারে তিনি বেশ আবেগপ্রবণ ছিলেন। 

স্ত্রীরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. নরেশ ভানুশালি বলেন, ‘আমরা প্রথমে ওষুধ লিখে তার মাসিক চক্রকে নিয়মিত করি। অতঃপর বয়সের কারণে সঙ্কুচিত জরায়ুকে চওড়া করি। এরপর আমরা তার ডিম্বাণু নিষিক্ত করি এবং ব্লাস্টোসিস্ট তৈরি করে জরায়ুতে স্থানান্তর করি।’ 

দুই সপ্তাহ পর চিকিৎসকরা সোনোগ্রাফি করে ভ্রূণের উন্নতি দেখে খুবই অবাক হন। এরপর থেকে চিকিৎসকরা এর পর্যবেক্ষণ করতে থাকেন। পরবর্তীতে যথাসময়ে হৃদস্পন্দন সনাক্ত হয় এবং তাতে কোন ধরনের বিকৃতিও দেখা যায়নি। এভাবে গর্ভাবস্থা চলতে থাকে। মায়ের কোনো কমারবিডিটি না থাকলেও বয়সজনিত রক্তচাপের ঝুঁকি ছিল। তাই চিকিৎসকরা গর্ভাবস্থার আট মাস পর একটি সি-সেকশন করেন। এরপর শিশু ও তার মা সম্পূর্ণ সুস্থ আছে। 

সূত্র : টাইমস অব ইন্ডিয়া



সাতদিনের সেরা