kalerkantho

রবিবার । ৪ আশ্বিন ১৪২৮। ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১১ সফর ১৪৪৩

কভিড ভ্যাকসিন নিয়ে উপহাস করা সেই ব্যক্তির করোনায় মৃত্যু

অনলাইন ডেস্ক   

২৫ জুলাই, ২০২১ ১৫:৪৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কভিড ভ্যাকসিন নিয়ে উপহাস করা সেই ব্যক্তির করোনায় মৃত্যু

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে ডাক্তার-বিজ্ঞানীরা প্রাণপাত করে দিচ্ছেন। অল্প সময়ের মাঝেই আবিষ্কার হয়েছে ভ্যাকসিন। সেই ভ্যাকসিন এখন কোটি কোটি মানুষের প্রাণ বাঁচাচ্ছে। আবার আরেক শ্রেণির মানুষ এসব নিয়ে উপহাস করছে। ভুয়া ধর্মীয় বিধান দিয়ে করোনাভাইরাস এবং ভ্যাক্সিনের বিরুদ্ধে বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে। এবার তেমনই এক ব্যক্তির মৃত্যু হলো করোনায়। যিনি কভিড ভ্যাকসিন নিয়ে উপহাস করে আলোচিত হয়েছিলেন।

স্টিফেন হারমন নামের ৩৪ বছর বয়সী ওই ব্যক্তি যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যের বাসিন্দা। তিনি করোনায় আক্রান্ত হয়ে লস অ্যাঞ্জেলেসের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। গত বুধবার করোনা রিজিওনাল মেডিক্যাল সেন্টারে তার মৃত্যু হয় বলে জানিয়েছে দ্য ডেইলি মেইল। হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার পর তিনি নিজের সোশ্যাল অ্যাকাউন্টে দেওয়া একাধিক পোস্টে তার করোনায় আক্রান্ত হওয়ার খবরটি নিশ্চিত করেন। সেই সঙ্গে সবাইকে প্রার্থনা করতেও আহ্বান জানান। 

ডেইলি মেইল জানিয়েছে, স্টিফেন হারমন দীর্ঘ এক মাস করোনার সঙ্গে লড়াই করে শেষ পর্যন্ত প্রাণ হারান। হিলসং চার্চের সদস্য হারমন সক্রিয়ভাবে টিকার বিরোধিতা করেছেন। ভ্যাকসিন নেওয়ার ব্যাপারটি নিয়ে তিনি সোশ্যাল সাইটে নিয়মিত উপহাস করে গেছেন। গত জুনে তিনি এক টুইট বার্তায় বলেন, আমার ৯৯টি সমস্যা হলেও টিকা যেন আরেকটি সমস্যা না হয়। মূলত তিনি তার ফলোয়ারদের উদ্দেশেই এমন টুইট করেন। টুইটারে তার সাত হাজার ফলোয়ার আছে।

করোনাভাইরাসের সঙ্গে লড়াই করা অবস্থায়ও হারমন বলেছিলেন যে তিনি টিকা নেবেন না। তার বিশ্বাসই নাকি তাকে রক্ষা করবে। হাসপাতালে ভর্তির আগেও সামাজিক মাধ্যমে টিকা নিয়ে তিনি ট্রল করে গেছেন। লস অ্যাঞ্জেলেসের একটি কভিড হাসপাতালে তার নিউমোনিয়া ও করোনার চিকিৎসা চলছিল। এদিকে ক্যালিফোর্নিয়ায় সাম্প্রতিক সময়ে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বাড়তে শুরু করেছে। নতুন করে করোনায় আক্রান্তদের মধ্যে অধিকাংশই টিকা নেননি।



সাতদিনের সেরা