kalerkantho

শনিবার । ৩ আশ্বিন ১৪২৮। ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১০ সফর ১৪৪৩

প্রথম বার তিব্বত সফর করলেন চীনের প্রেসিডেন্ট

অনলাইন ডেস্ক   

২৩ জুলাই, ২০২১ ১৫:৪১ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



প্রথম বার তিব্বত সফর করলেন চীনের প্রেসিডেন্ট

তিব্বত সফর করেছেন চীনের প্রেসিডেন্ট সি চিন পিং। চীনের প্রেসিডেন্ট হিসেবে এটিই তাঁর প্রথম তিব্বত সফর ছিল। গত বুধবার (২১ জুলাই) তিনি দেশটির দক্ষিণ-পূর্বে নিয়াংঝি মেইনলিং বিমানবন্দরে পৌঁছেন। খবর রয়টার্সের। 

তিনদিনের সফরে চীনের প্রেসিডেন্ট সি চিন পিং তিব্বত পৌঁছলে তাঁকে তিব্বতের ঐতিহ্যবাহী পোশাক পরে অভ্যর্থনা জানানো হয়। চীনের পতাকা উড়িয়ে লালগালিচায় সংবর্ধনা জানানো হয়। এরপর তিনি তিব্বতের বিভিন্ন স্থানে চীনের নেতৃত্বে চলমান উন্নয়নমূলক কাজ পরিদর্শন করেন।

চীনের প্রেসিডেন্ট সেখানকার পিং ইয়াং সেতু পরিদর্শন করেন। এরপর তিনি ইয়ারলুং সাংপো ও ইয়ান নদীবাহিত এলাকার পরিবেশ সুরক্ষা পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করেন। এরপর তিনি নিয়াংঝি সিটি প্ল্যানিং মিউজিয়ামসহ নানা এলাকা পরিদর্শন করেন। নিয়াংঝি রেলস্টেশনে গিয়ে সিচুয়ান-তিব্বত রেলওয়ের কার্যক্রম দেখেন। এরপর তিনি ট্রেনে করে রাজধানী লাসার উদ্দেশে রওনা দেন।

সি চিন পিং চীনের প্রেসিডেন্ট হওয়ার আগেও তিব্বত সফর করেছেন। ১৯৯৮ সালে প্রথম তিনি ফুজিয়ান প্রদেশ থেকে দলের প্রধান হিসেবে তিব্বত যান। পরে ২০১১ সালে সফর করেন চীনের ভাইস প্রেসিডেন্ট হিসেবে। ১৯৯০ সালে সর্বশেষ চীনের প্রেসিডেন্ট জিয়াং জেমিন তিব্বতে যান।

তিব্বত চীনের একটি স্বায়ত্তশাসিত অঞ্চল। যদিও অনেকেই তিব্বতিদের চীনের অংশ মানতে রাজি নয়। এ কারণেই ১৯৬৯ সালে তিব্বতিরা দালাই লামার নেতৃত্বে চীনের বিরুদ্ধে স্বাধিকার আন্দোলন গড়ে তোলে, যা শেষ পর্যন্ত সফল হয়নি। তিব্বতে জনরোষ প্রতিরোধ করতে সেখানকার বিভিন্ন উন্নয়নকাজে হাত দেয় চীন।



সাতদিনের সেরা