kalerkantho

সোমবার । ১১ শ্রাবণ ১৪২৮। ২৬ জুলাই ২০২১। ১৫ জিলহজ ১৪৪২

কাশ্মিরের নেতাদের সঙ্গে মোদির বৈঠক আজ

অনলাইন ডেস্ক   

২৪ জুন, ২০২১ ১৬:২৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কাশ্মিরের নেতাদের সঙ্গে মোদির বৈঠক আজ

জম্মু-কাশ্মিরের ১৪ জন রাজনৈতিক নেতা বিশেষ মর্যাদা প্রত্যাহারের দু’বছর পর প্রথমবার ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের সঙ্গে বৈঠকে বসতে চলেছেন। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি নিজেই এই বৈঠকের আয়োজন করেছেন। বৈঠকের কথা মাথায় রেখে জম্মু-কাশ্মীরে আগামী ৪৮ ঘণ্টার জন্য রেড অ্যালার্ট জারি করা হয়েছে। মোদীর বৈঠকে যোগ দিতে জম্মু-কাশ্মীরের অধিকাংশ নেতারাই গতকাল বুধবার রাতে দিল্লি পৌছেছেন।

আজ বৃহস্পতিবার এ  বৈঠকের বিষয়বস্তু সরকারি ভাবে জানানো না-হলেও সূত্রের মতে, জম্মু-কাশ্মিরে আগামী দিনে বিধানসভা নির্বাচন করানোর পক্ষপাতী কেন্দ্র। কিন্তু তার আগে দু’দশক ধরে আটকে থাকা জম্মু-কাশ্মীরের বিধানসভা আসনগুলির পুনর্বিন্যাস করে ফেলতে চায় মোদি সরকার। সূত্রের মতে, সেই বিষয়টি আলোচনার জন্যই ওই বৈঠক ডেকেছে কেন্দ্র।

কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষে জম্মু ও কাশ্মিরের বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের মোট ১৪ জন নেতাকে আহবান করা হয়েছে এই বৈঠকে। এদের মধ্যে রয়েছেন মেহবুবা মুফতি, কংগ্রেস নেতা গুলাম নবি আজাদ, সাবেক উপ মুখ্যমন্ত্রী কবীন্দ্রর গুপ্ত ও জম্মু ও কাশ্মিরের বিজেপির প্রধান রবীন্দ্র রায়না, ফারুক আবদুল্লা-সহ অন্যান্যরা। মোদি বিরোধী ফারুক আবদুল্লাহ থেকে মেহবুবা মুফতিদের এই বৈঠকে উপস্থিতিতে যথেষ্ট তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করছে ভারতের রাজনৈতিক মহল। কাশ্মিরের বুকে রাজনৈতিক পরিস্থিতি কোনোদিকে যেতে চলেছে, তার দিকে নজর দিয়ে এদিন রাজনৈতিক পরিস্থিতির ওপর জোর দিতে চলেছে দিল্লি।

কাশ্মীরের ছয় দলের গুপকর জোটের মুখপাত্র তথা সিপিএম নেতা ইউসুফ তারিগামি বলেন, ‘কী নিয়ে আলোচনা হবে তা জানি না। সরকার কী বলতে চাইছে, তা দেখেই জোট সিদ্ধান্ত নেবে।’ তবে ইতোমধ্যেই ফারুক আবদুল্লাহ বা মেহবুবা মুফতির মতো প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীরা জানিয়েছেন, বৈঠকে তাদের মূল দাবিই হবে জম্মু-কাশ্মিরের রাজ্যের মর্যাদা ও লোপ পাওয়া বিশেষ মর্যাদার পুনঃপ্রতিষ্ঠা। ২০১৮ সালে মেহমুবা মুফতি ও পিডিপি সরকারের পতনের পর থেকে এখনও সেখানে নির্বাচিত সরকার গঠন করা হয়নি।

সূত্র: ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।



সাতদিনের সেরা