kalerkantho

রবিবার । ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮। ১৩ জুন ২০২১। ১ জিলকদ ১৪৪২

শপথ নিয়েই পশ্চিমবঙ্গে আংশিক লকডাউন ঘোষণা মমতার

অনিতা চৌধুরী, কলকাতা প্রতিনিধি   

৫ মে, ২০২১ ১৮:৫৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



শপথ নিয়েই পশ্চিমবঙ্গে আংশিক লকডাউন ঘোষণা মমতার

তৃতীয়বার মুখ্যমন্ত্রী পদে শপথ নিয়ে করোনা মোকাবিলায় শক্ত হাতে হাল ধরলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বৃহস্পতিবার থেকেই পশ্চিমবঙ্গে আংশিক লকডাউন ঘোষণা করলেন তিনি।

আজ বুধবার মমতা ঘোষণা দিয়েছেন, রাজ্যে লোকাল ট্রেন চলাচল বন্ধ থাকবে। করোনা পরিস্থিতিতে বিমান যাত্রীদের এবং অন্য রাজ্য থেকে যারা ট্রেনে বা বাসে আসবেন তাদের জন্যে কোভিড নেগেটিভ  রিপোর্ট বাধ্যতামূলক করা হয়েছে।

"আমরা লকডাউন করছি না কিন্তু কিছু কিছু বিধিনিষেধ আরোপ করছি" বললেন মমতা।

তিনি জানান, সরকারি পরিবহনে ৫০ শতাংশ যাত্রী চলাচল করতে পারবে। যদিও ,মেট্রো চলবে, তবে তাতে ৫০ শতাংশ যাত্রী থাকতে পারবেন।

আজ মমতা নতুন নির্দেশিকা জারি করে দোকান খোলার সময় পালটে দিয়েছেন। আগে সকাল ৭ টা থেকে সকাল ১০ টা পর্যন্ত ছিল। দুপুর ৩ টে থেকে বিকেল ৫ টা পর্যন্ত সময় ছিল। বিকেলের সেই সময় পালটে গেল। এবার বিকেল ৫ টা থেকে সন্ধ্যা ৭ টা পর্যন্ত দোকান খোলা রাখা যাবে। তবে সোনার দোকানের ক্ষেত্রে সময় হচ্ছে দুপুর ১২ টা থেকে দুপুর ৩ টে।

মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিয়েই মমতা রাজ্যের করোনা রোগীদের জন্য বেডের সংকট মেটাতে উদ্যোগ নিলেন। এই মুহূর্তে রাজ্যে ২৭ হাজার কোভিড বেড রয়েছে এবং আরও তিন হাজার বেড বাড়ানো হচ্ছে বলে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী৷

মমতা এদিনও দিল্লির নরেন্দ্র মোদি সরকারকে আক্রমণ করেন এবং ভ্যাকসিন সংকট নিয়ে বলেন, ‘আমরা যেখানে কয়েক কোটি ডোজ ভ্যাকসিন চেয়েছি, সেখানে কয়েক লক্ষ ডোজ ভ্যাকসিন দেওয়া হচ্ছে। আমাদের অক্সিজেন নিয়ে অন্যান্য রাজ্য চলে যাচ্ছে। ইন্ডাস্ট্রিগুলোর কাছে আমি কৃতজ্ঞ। সেখান থেকেই আপাতত অক্সিজেন আনছি।’

ভ্যাকসিন নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে এদিন চিঠি লিখেছেন মমতা। তাতে বাংলার মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, সংক্রমণ প্রতিহত করতে হলে বিনামূল্যে সার্বিক টিকাকরণে জোর দিতে হবে। তার জন্য বাড়াতে হবে টিকার জোগান।



সাতদিনের সেরা