kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৩ আষাঢ় ১৪২৮। ১৭ জুন ২০২১। ৫ জিলকদ ১৪৪২

যুক্তরাজ্যে জনসনের টিকার ব্যবহার স্থগিত

অনলাইন ডেস্ক   

১৩ এপ্রিল, ২০২১ ২০:০৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



যুক্তরাজ্যে জনসনের টিকার ব্যবহার স্থগিত

কিছু মানুষের দেহে রক্ত জমাট বেঁধে যাওয়ার অভিযোগ পাওয়ার ঘটনা পর্যালোচনা করে জনসন অ্যান্ড জনসনের টিকা দান কার্যক্রম স্থগিত করার নির্দেশ দিয়েছে যুক্তরাজ্য সরকার। ১৮ থেকে ৪৮ বছর বয়সের মহিলাদের মধ্যে এ সমস্যা দেখা গেছে এবং টিকা দেওয়ার ৬ থেকে ১৩ দিন পরে তাদের মধ্যে লক্ষণগুলি দেখা যায়। এসব ঘটনা পর্যালোচনা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলো ইউরোপের ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থা ইউরোপিয়ান মেডিসিনস এজেন্সি।

এর আগে নর্থ ক্যারোলিনায় ১৮ ও কলোরাডোর হাসপাতালে ৪ জনের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ায় জনসন এন্ড জনসন টিকাদান কর্মসূচি স্থগিত করা হয়েছে। জনসন এন্ড জনসন কভিড টিকা দেওয়ার পর অনেকে বমি ভাব ও মাথা ঘোরার কথা জানান। তবে ওয়াকি কাউন্টির স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা বলছেন এসব প্রতিক্রিয়া সাধারণ ধরনের।

জনসন অ্যান্ড জনসনের এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘আমাদের নীতিমালা অনুসরণ করে স্বেচ্ছাসেবকের অসুস্থতার বিষয়টি পর্যালোচনা করা হচ্ছে। এটি মূল্যায়ন করছে স্বতন্ত্র ডেটা সেফটি মনিটরিং বোর্ড (ডিএসএমবি)। এ ছাড়া আমাদের নিজস্ব চিকিৎসকেরাও এ তথ্য মূল্যায়ন করবেন।’

গত মাসে জনসন অ্যান্ড জনসনের তৃতীয় ধাপের পরীক্ষা শুরু হয়। যুক্তরাষ্ট্রে মোট ছয়টি করোনার টিকা নিয়ে পরীক্ষা চলছে। অন্য টিকাগুলোর দুই ডোজ প্রয়োজন হলেও জনসন অ্যান্ড জনসনের টিকার মাত্র এক ডোজ প্রয়োজন হয়। যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে এ টিকার দ্রুত পরীক্ষা শেষ হবে বলে আশা করা হচ্ছিল।

সূত্র: বিবিসি।



সাতদিনের সেরা