kalerkantho

সোমবার । ৬ বৈশাখ ১৪২৮। ১৯ এপ্রিল ২০২১। ৬ রমজান ১৪৪২

বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ভাষণ স্মরণে কলকাতায় একগুচ্ছ অনুষ্ঠান

অনিতা চৌধুরী, কলকাতা প্রতিনিধি   

৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ২০:৫৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ভাষণ স্মরণে কলকাতায় একগুচ্ছ অনুষ্ঠান

১৯৭২ সালে ৬ ফেব্রুয়ারি শেখ মুজিবুর রহমান কলকাতা ব্রিগেড প্যারেড গ্রাউন্ডে যে ঐতিহাসিক ভাষণ দিয়েছিলেন তারই ৫০ বছরপূর্ণ হবে এ বছর। তাই ওই দিনটিকে স্মরণীয় করে রাখতে আগামী ৬ ফেব্রুয়ারি নানা অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে বাংলাদেশের তথ্য মন্ত্রণালয়। সহযোগিতায় আছে কলকাতায় অবস্থিত বাংলাদেশ উপ-দূতাবাস।

দিনটির স্মরণে আগামী ৬ ফেব্রুয়ারি কলকাতার ব্রিগেড প্যারেড গ্রাউন্ডের ঠিক যেখানে জনসভা মঞ্চে ইন্দিরা গান্ধী ও শেখ মুজিবুর রহমান ভাষণ দিয়েছিলেন সেখানেই স্মরণ অনুষ্ঠান করা হবে। ওইদিনের অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ। পাশাপাশি ভারতের কেন্দ্রীয় ও রাজ্য মন্ত্রীদের অনুষ্ঠানের আমন্ত্রণ করা হচ্ছে। স্মরণ অনুষ্ঠানে উপলক্ষে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে অংশ নেবেন দুই বাংলার শিল্পীরা।

অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মৈত্রী সম্মাননা প্রাপক ভারতীয়দের সংবর্ধনা জানানো হবে। এখানেই শেষ নয়, তার আগের দিন অর্থাৎ ৫ জানুয়ারি থেকে শুরু হচ্ছে তৃতীয়বারের মতো 'বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উৎসব'। শহরের নন্দন-১ প্রেক্ষাগৃহে স্থানীয় সময় বিকেল ৪টায় এ উৎসবের শুরু হবে। উদ্বোধনী চলচ্চিত্র হিসেবে ওইদিন সন্ধ্যা ছটায় দেখানো হবে ‘হাসিনা: আ ডটারস টেল’। অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন ফেরদৌস আহমেদ, দিলারা হানিফ পূর্ণিমা, রিয়াজ উদ্দিন আহমেদ সিদ্দিকী (রিয়াজ), জাহিদ হাসান, জয়া আহসান ও আলোক কুমার সেনের মতো কলাকুশলীরা। পরদিন ৬ ফেব্রুয়ারি কলকাতার নন্দন-২ প্রেক্ষাগৃহে প্রদর্শিত হবে চলচ্চিত্র ‘ন ডরাই’, গণ্ডি, আয়নাবাজী ও জন্মসাথী। 

ভারত-বাংলাদেশের মৈত্রী আরো দৃঢ় করার লক্ষ্যে ৬ তারিখ থেকে ৯ তারিখ পর্যন্ত চলবে নানা অনুষ্ঠান। অনুষ্ঠানগুলোতে উপস্থিত থাকবেন বাংলাদেশ ফিল্ম ডেভেলপমেন্ট করপোরেশনের (এফডিসি) ব্যবস্থাপনা পরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) নুজহাত ইয়াসমিন, তথ্য মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব মো. নজরুল ইসলাম ও তথ্য মন্ত্রণালয়ের অন্যান্য ব্যক্তিরা। সবমিলিয়ে কয়েক দিনের জন্য কলকাতা হবে উঠবে একখণ্ড বাংলাদেশ।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা