kalerkantho

শনিবার । ২৪ শ্রাবণ ১৪২৭। ৮ আগস্ট  ২০২০। ১৭ জিলহজ ১৪৪১

দৈত্যাকার গরিলার করোনা পরীক্ষা করতে গিয়ে নাস্তানাবুদ চিকিৎসকরা!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৩ জুলাই, ২০২০ ১৫:২৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



দৈত্যাকার গরিলার করোনা পরীক্ষা করতে গিয়ে নাস্তানাবুদ চিকিৎসকরা!

করোনার পরীক্ষার জন্য মানুষের বদলে হাসপাতালের বিছানায় শুয়ে আছে গরিলা! শুনতে আবাক লাগলেও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডা অঙ্গরাজ্যের মিয়ামি শহরে সত্যিই এক বৃহদাকার গরিলার করোনা টেস্ট হয়েছে সম্প্রতি। সুস্থ কি-না, পরীক্ষা করতে গিয়ে রীতিমত ঘাম ছুটেছে চিকিৎসকদের! অত্যন্ত সাহসিকতার সঙ্গেই তার এক্স-রে, আলট্রাসাউন্ড, টিবি টেস্ট এবং করোনা টেস্ট করা হয়। আর সৌভাগ্যক্রমে তার রিপোর্ট নেগেটিভ আসে।

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম সূত্রে জানা যায়, শানগো নামের এই গরিলার ঠিকানা মিয়ামি চিড়িয়াখানায়। সেখানেই দিন কয়েক আগে নিজের ভাই বার্নির সঙ্গে হাতাহাতি হয়েছিল তার। সে একেবারে রক্তারক্তি কাণ্ড। এমনিতে তারা ভালোই বন্ধু। তাই দুই ভাইকে লড়তে দেখে অবাক হয়েছিল চিড়িয়াখানা কর্তৃপক্ষ। লড়াইয়ে গুরুতর চোট পায় ৩১ বছরের শানগো। তাই চিকিৎসার জন্যই তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। ঠিক হয় এই সুযোগে করোনা টেস্টও করিয়ে নেওয়া হবে।

চিকিৎসরা দীর্ঘ পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর জানান, গরিলার শরীরের কোনো হাড় ভাঙেনি। করোনাও থাবা বসাতে পারেনি শরীরে। বাকি যা চোট লেগেছে, তা ধীরে ধীরে ঠিক হয়ে যাবে।

এরই মধ্যেই নিজের আস্তানায় ফিরেছে শানগো। দূরত্ব বজায় রাখতে বার্নিকে রাখা হয়েছে অন্য খাঁচায়। তবে শানগো জানেও না ভার্চুয়াল দুনিয়ায় কতখানি সাড়া ফেলে দিয়েছে সে। এখন তার একগুচ্ছ ছবিই সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে। তার করোনা টেস্ট করানোর সময় কয়েকটি ছবি তুলে পোস্ট করা হয়। আর এরপর থেকেই তা ভাইরাল হয়ে পড়ে।

সূত্র: সংবাদপ্রতিদিন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা