kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ । ২ জুন ২০২০। ৯ শাওয়াল ১৪৪১

করোনা

'বাড়িতে থাকুন,আমরা সবজি পৌঁছে দেবো'

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৮ মার্চ, ২০২০ ১৫:৫৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



'বাড়িতে থাকুন,আমরা সবজি পৌঁছে দেবো'

প্রতীকী চিত্র

লকডাউন চলছে।এ কারণে বাজারে যেতে সমস্যা হচ্ছে ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের নাগরিকদের। তবে ত্রাণকর্তা হিসেবে এগিয়ে এসেছেন বাজার সমিতির কর্মীরা।তাদের বার্তা :  ‘আপনারা বাড়িতে থাকুন। বাড়ির বাইরে বেরুবেন না।আমরা আপনার বাড়িতে সবজি পৌঁছে দেবো। 

করোনার এই সময়ে নাই বা বের হলেন বাড়ি থেকে। থাকুন না একটু বাড়ির ভেতরে। তাতে আপনার ভালো, আর পাঁচজনেরও ভালো। আর বাড়িতে থাকবেন বলে এটা কিন্তু ধরে নেবেন না যে না খাতে পেয়ে মরতে হবে। আপনার বাড়িতে আমরাই নিত্যদিন আলু-পটল-পেয়াজ-কপি পৌঁছে দেবো। একদম নিশ্চিন্তে থাকুন। কোনও ভয় পাবেন না।কলকাতার ইংরেজবাজার শহরের বাসিন্দারা শনিবার সকাল থেকেই এই কথা শুনছেন। শুনে একদিকে যেমন বেশ মজা পাচ্ছেন ঠিক তেমনি আশ্বাসও পাচ্ছেন। কারণ বাড়ির দোরগড়ায় এসে সবজি পৌঁছে দিচ্ছে শহরের বাজার সমিতির কর্মীরাই। তাই বাড়ির বাইরে বেড়িয়ে সবজির বাজারটা আর করতে হচ্ছে না।
 
‘আপনারা বাড়িতে থাকুন। বাড়ির বাইরে বরোবেন না।’ এমনই বার্তা নিয়ে মালদা জেলার নিয়ন্ত্রিত বাজার সমিতির কর্মীরা শনিবার সকালে হাজির হলেন ইংরেজবাজার শহরের বাসিন্দাদের বাড়িতে বাড়িতে। সঙ্গে আলু আর পেঁয়াজ। শনিবার সকাল থেকে এমনভাবেই ইংরেজবাজার পুর এলাকার অলিগলিতে বাড়ি বাড়ি গিয়ে আলু আর পেঁয়াজ বিক্রী করলেন নিয়ন্ত্রিত বাজার কমিটির কর্মীরা। উদ্দেশ্য একটাই, করোনা ভাইরাসকে প্রতিরোধ করার জন্য এলাকাবাসীকে ঘরে বন্দি করে রাখা। সরকারী নিদের্শিকার পরও জেলাবাসী বাজারগুলিতে ভিড় করছেন। কার্যত করতে বাধ্যও হচ্ছেন। তাই জেলা প্রশাসনের তরফে এমন উদ্যোগ। শহরের প্রতিটি মহল্লার বাড়ি বাড়ি গিয়ে বাসিন্দাদের প্রয়োজন অনুযায়ী আলু ও পেঁয়াজ বিক্রী করলেন নিয়ন্ত্রিত বাজার কমিটির কর্মীরা। এর ফলে একদিকে যেমন কালোবাজারি রোখা সম্ভব হবে অন্যদিকে ঘর বন্দি রাখা যাবে বাসিন্দাদের।  

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা