kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৪ চৈত্র ১৪২৬। ৭ এপ্রিল ২০২০। ১২ শাবান ১৪৪১

আপাতত মামালা হচ্ছে না সেই বিজেপি নেতাদের বিরুদ্ধে

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ১৬:৩৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



আপাতত মামালা হচ্ছে না সেই বিজেপি নেতাদের বিরুদ্ধে

উসকানিমূলক মন্তব্য করে দিল্লিতে মুসলিমদের ওপর হামলায় ইন্ধন যোগানো বিজেপি নেতাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করা সংক্রান্ত মামলায় দিল্লি পুলিশ ও কেন্দ্রীয় সরকারকে চার সপ্তাহ সময় দিল দিল্লি হাইকোর্ট। এ দিন আদালতের কাছে এ ব্যাপারে সময় চেয়ে নেয় কেন্দ্র ও দিল্লি পুলিশ। হেট স্পিচ তথা উসকানিমূলক মন্তব্য পরীক্ষা করে দেখে জবাব দেওয়ার জন্য পুলিশকে চার সপ্তাহ সময় দেয় আদালত। এই মামলার পরবর্তী শুনানি ১৩ এপ্রিল। এর আগে অবিলম্বে অভিযোগ দায়েরের নির্দেশ দেওয়া এক বিচারককে বদলি করার পরই আদালত বিষয়টি পিছিয়ে দিলো।

যে উসকানিমূলক মন্তব্য দিল্লির হিংসার অনুঘটক বলে অভিযোগ উঠেছে, তা বলার জন্য অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে এখনই অভিযোগ দায়ের করা সম্ভব নয় বলে আদালতে জানিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার ও দিল্লি পুলিশ। সলিসিটর জেনারেল তুষার মেহতা বলেনন, তাড়াহুড়ো করে মামলা করায় সমস্যা রয়েছে। এখন মামলা করার সময় নয়। যথাসময়ে অভিযোগ দায়ের করা হবে বলে জানিয়ে তিনি দিল্লি হাইকোর্টের থেকে কিছুটা সময় চান। এরপর চার সপ্তাহ সময় দেয় আদালত।

বুধবারই দিল্লি পুলিশকে একহাত নিয়ে তীব্র ভর্ত্‍‌সনা করেছিল দিল্লি হাইকোর্ট। বিচারপতিরা বলেন, যাঁরা উসকানিমূলক মন্তব্য করছেন, তাঁদের বিরুদ্ধে অভিযোগ করার ক্ষেত্রের বিলম্ব হওয়া উচিত না। এ বিষয়ে গুরুত্ব দেওয়ার জন্য দিল্লি পুলিশকে বলে আদালত।

দুই বিচারপতির বেঞ্চের এজলাসে চার বিজেপি নেতার উসকানিমূলক মন্তব্যের ভিডিও দেখানো হয়েছে। এই চার নেতারা হলেন, কপিল মিশ্র, অনুরাগ ঠাকুর, অভয় ভার্মা ও প্রবেশ ভার্মা। কেন তাঁদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করা হয়নি, তা নিয়েও প্রশ্ন তোলে আদালত।

ওই ঘটনার পরই বুধবার গভীর রাতে বিচারপতি এস মুরলীধরের বদলির নির্দেশ আসে। তাঁকে পাঞ্জাব ও হরিয়ানা হাইকোর্টে বদলি করা হয়েছে । বুধবারই তাঁর এজলাসে দিল্লির সংঘর্ষের নিয়ে শুনানি চলাকালীন কেন্দ্র, দিল্লি সরকার ও দিল্লি পুলিশকে তাঁর তোপের মুখে পড়তে হয়।

সূত্র: এই সময়

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা