kalerkantho

সোমবার । ১৪ অক্টোবর ২০১৯। ২৯ আশ্বিন ১৪২৬। ১৪ সফর ১৪৪১       

ধর্ষণে জন্মানো নিজ সন্তানকে পুড়িয়ে মারল ধর্ষক

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ১৮:৫৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ধর্ষণে জন্মানো নিজ সন্তানকে পুড়িয়ে মারল ধর্ষক

ধর্ষণ বন্ধ করতে আন্দোলনে দেশটির নারীরা। ফাইল ছবি।

প্রতিবেশী দেশ ভারতে অপরাধের মাত্রা দিন দিন বেড়েই চলছে। শিশু থেকে বৃদ্ধারও শিকার হচ্ছেন নৃশংস যৌন লালসার। গুজরাটে ২০১৭ সালের অক্টোবর মাসে সুরাটের স্থানীয় একটি খামারে এক নারীকে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করে রাথোড নামের স্থানীয় এক ব্যক্তি। এরপর গত এক বছরে বেশ কয়েকবার ওই নারীকে ধর্ষণ করে রাথোড। এরই মধ্যে ২০১৮ সালে গর্ভবতী হন ওই নারী। এর তিন মাস পর তার শরীরের বেশকিছু পরিবর্তন লক্ষ্য করেন নির্যাতিরা মা। তখনই তিনি মায়ের কাছে সব কথা বলেন। 

এই পরিস্থিতিতে নির্যাতিরা পরিবারের লোকজন রাথোডের বাড়ি গিয়ে সব কথা জানান। কিন্তু সেই সময়ে রাথোড তার পরিবারের লোকেদের সামনে সব কথা অস্বীকার করে। এর কিছুদিন পর চলতি বছরের জুন মাসে রাথোডের মালিক মহেশ প্যাটেল নির্যাতিতার সঙ্গে কথা বলে তার চিকিৎসা করাতে পাঠায় হোমিওপ্যাথি চিকিৎসক গুজরাটির কাছে। সুরাটের সেই ক্লিনিকেই জন্মায় নির্যাতিতার এক ছেলে সন্তান। অভিযোগ চিকিৎসক গুজরাটি অভিযুক্তদের সঙ্গে মিলে নবজাতকে জীবন্ত পুড়িয়ে হত্যা করেছে।

এই ঘটনার জেরে গত শনিবার অভিযুক্ত চার জন, যার মধ্যে আছে প্রধান অভিযুক্ত অশোক রাথোড, অশোকের মালিক মহেশ প্যাটেল, হোমিওপ্যাথি চিকিৎসক রাজেশ গুজরাটি এবং জয়দ্বীপকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।
 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা