kalerkantho

বৃহস্পতিবার  । ১৭ অক্টোবর ২০১৯। ১ কাতির্ক ১৪২৬। ১৭ সফর ১৪৪১       

চাকরির ইন্টারভিউ দিতে গিয়ে ধর্ষণের শিকার তরুণী

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ১৬:০৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



চাকরির ইন্টারভিউ দিতে গিয়ে ধর্ষণের শিকার তরুণী

প্রতীকী ছবি

চাকরির জন্য ইন্টারভিউ দিতে গিয়ে ধর্ষণের শিকার হয়েছেন এক নারী। ভারতের মুম্বাইয়ের এক হোটেলে এ ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে দিল্লির এক বাসিন্দাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। 

পুলিশ জানিয়েছে, ওই নারীর নাম সাহিল সিং অরোরা। বয়স ২৮ বছর। সাহিলকে একটি বেসরকারি ব্যাংকের এইচআর বিভাগে চাকরি করে দেবে বলে প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিল। 

পুলিশের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, জুহুর হোটেলে রুম বুক করার সময় যে তথ্য অরোরা দিয়েছিলেন, তার ভিত্তিতেই তাকে খুঁজতে শুরু করেছিল পুলিশের একটি দল।

জানা গেছে, উত্তরপ্রদেশের  বাসিন্দা ওই নারী গত বছর একটি বেসরকারি কোম্পানিতে চাকরি পেয়ে মুম্বাই যান। মুম্বাইতে তিনি পেয়িং গেস্ট হিসেবে থাকতেন। কয়েক মাস পর তিনি চাকরি ছেড়ে বাড়ি ফিরে যান। 

ওই নারী বলেছেন, এপ্রিলে মুম্বাই ফিরে আসি। এরপর পেশাদার নেটওয়ার্কিং সাইটে চাকরির খোঁজ শুরু করি। জুলাইতে অরোরা কাছ থেকে ডাক পাই। অরোরা আমাকে নিজের ফোন নম্বর দিয়ে বলেছিল, একটি বেসরকারি ব্যাংকে এইচআর-এ চাকরির জন্য পদ খালি রয়েছে। মাসে ৩০,০০০ টাকা বেতন দেওয়া হবে। 

তিনি বলেন, ১৯ সেপ্টেম্বর অরোরা আমাকে ফোন করে ইন্টারভিউয়ের জন্য সন্ধ্যার পর জুহুর হোটেলে যেতে বলে। আমার সব নথিও নিয়ে যেতে বলে। যখন হোটেলের ঘরে ঢুকি, অরোরা দরজাটা বন্ধ করে দেয়। এরপর বারবার সে আমাকে ধর্ষণ করে। আমি চিত্‍‌কার করলে সে আমাকে ভয় দেখায়। 

জানা গেছে, সারারাত অত্যাচার চালিয়ে পরের দিন মেয়েটিকে যাওয়ার অনুমতি দেয় অরোরা। পুলিশের কাছে না যাওয়ার হুঁশিয়ারিও দেয় সে। অরোরা হুমকি দেয়, পুলিশকে জানালে ধর্ষণের ভিডিও মেয়েটির বাবাকে পাঠানো হবে।

 

 

 


 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা