kalerkantho

বিবর্ণ পোশাক পরে শুয়ে আছে কঙ্কাল!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২২ আগস্ট, ২০১৯ ১৬:২০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



বিবর্ণ পোশাক পরে শুয়ে আছে কঙ্কাল!

ভারতের কলকাতা শহরের নিউটাউনের আকাঙ্ক্ষা মোড় এলাকায় পড়ে রয়েছে কয়েকটা ড্রাম। তার একটার মধ্যে জামা-প্যান্ট পরা এক অবয়ব দেখা যায় দূর থেকে। কিন্তু কাছে যেতেই দেখা গেল অন্য চিত্র। জামা-প্যান্টের আড়ালে কোনো রক্তমাংসের দেহ নেই। রয়েছে আস্ত নরকঙ্কাল! তার পাশেই যত্নে করে রাখা হয়েছে পানির বোতল। গত বুধবার এই কঙ্কালের সন্ধান পায় স্থানীয়রা।

ভারতের স্থানীয় সংবাদমাধ্যম সূত্রে জানা যায়, বুধবার বিকেলে কলাকতার নিউটাউন থানায় একটা ভাসা ভাসা খবর আসে যে, মুনবিম হাউজিংয়ের উল্টো দিকে অদ্ভুত কিছু একটা রয়েছে। তাড়াতাড়ি পুলিশকে যেতে বলা হয়। সেখানে রাজ্য বিদ্যুতের একটি সাব স্টেশন রয়েছে। চারপাশে হাঁটু সমান ঘাস। কিছুক্ষণের মধ্যেই গাড়ি নিয়ে পু্‌লিশ পৌঁছয় ঘটনাস্থলে। তখনও আন্দাজ করা যায়নি ঠিক কী দৃশ্য অপেক্ষা করছে পুলিশ কর্মকর্তাদের জন্য। 

পুলিশের এক কর্মকর্তা জানান, ঘটনাস্থলে বড় বড় কতকগুলো ইলেকট্রিক কেবলের ড্রাম পড়ে আছে। সেখানকার একটি ড্রামের দিকে আঙুল দেখাচ্ছিল স্থানীয় লোকজন। গিয়ে দেখা যায় জামা-প্যান্ট পরা একজন শুয়ে আছেন। হাত দিয়ে ধরে তাকে ডাকতে গিয়েই চক্ষু চড়কগাছ! বিবর্ণ পোশাক পরে কঙ্কাল শুয়ে আছে ড্রামের ভিতর। তার পাশে রাখা একটি পানির বোতল। এমনকী পাশে রাখা ব্যাগ থেকে উঁকি দিচ্ছে ফাইলও। দেখে মনে হবে যেন ক্লান্ত কোনো পথিক ব্যাগ রেখে বিশ্রাম নিচ্ছেন।

প্রাথমিক তদন্তের পর পুলিশের বলছে, অসুস্থতার কারণেই মৃত্যু হয়েছে ওই ব্যক্তির। কঙ্কালের ডিএনএ টেস্ট করলে তবেই বোঝা যাবে ঠিক কতদিন আগে মারা যান তিনি। কিন্তু কীভাবে ওই ব্যক্তি ড্রামের ভিতরে এলেন? পুলিশ মনে করছে, কোনওভাবে ড্রামের মধ্যে ঢুকে শুয়েছিলেন তিনি। তারপর সেখান থেকে আর উঠে আসতে পারেননি। 

তবে মৃত্যুর ঘটনাস্থল নিয়ে ধোঁয়াশা তৈরি হয়েছে। এলাকার বাসিন্দারা জানান, কখনও কোনো গন্ধ পাওয়া যায়নি। একজন মানুষ এলাকায় শুকিয়ে কঙ্কাল হয়ে গেল, অথচ কোনো গন্ধ পাওয়া গেল না, এই বিষয়টিই ভাবাচ্ছে পুলিশকে।

এদিকে বাইরে থেকে কাউকে খুন করে এ জায়গায় ফেলে রাখা হয়েছে কি না তা-ও খতিয়ে দেখছে পুলিশ। কঙ্কালের পাশ থেকে একটি ব্যাগ উদ্ধার হয়েছে। সেই ব্যাগকে ঘিরেই দানা বেঁধেছে নতুন রহস্য। ব্যাগ থেকে পাওয়া গিয়েছে একটি প্যান কার্ড। তার নম্বর কেএএসপিএস৯৯১ই। 

উদ্ধার করা ওই প্যানকার্ডে লেখা নাম ফেডারসন সাংমা। এই কঙ্কালই কি তবে ফেডারসন? তদন্তে সেই দিকেই নজর দিচ্ছেন গোয়েন্দারা। তবে প্যানকার্ড অনুযায়ী সাংমার ঠিকানা অসমের কার্বি আংলং জেলার সাতগাঁও। 

ফেডারসনের ঠিকুজি জানতে সাতগাঁও যাওয়ার পরিকল্পনা নিয়েছে নিউটাউন থানার একটি টিম। সেখানে গেলে তবেই জানা যাবে এই নরকঙ্কালের সঙ্গে ওই ব্যক্তির সম্পর্ক রয়েছে কি না।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা