kalerkantho

বিজেপির সঙ্গে সুর মিলালেন তসলিমা, শরিয়া আইনও বাতিলের আহবান

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৭ আগস্ট, ২০১৯ ২২:৩৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বিজেপির সঙ্গে সুর মিলালেন তসলিমা, শরিয়া আইনও বাতিলের আহবান

ভারতীয় সংবিধানের ৩৭০ ধারা বিলুপ্তির পর পুনর্জন্ম হয়েছে জম্মু ও কাশ্মীরের। ‘এক দেশ এক সংবিধান’-এ এখন আরও ঐক্যবদ্ধ ভারতবর্ষ। বিজেপির এমন মতামতের সঙ্গে গলা মিলিয়েছেন বাংলাদেশি লেখিকা তসলিমা নাসরিনও। আর তিনি এবার চান এই প্রক্রিয়াতেই ‘ইসলামিক ল’ বা নারী-বিরোধী শরিয়া আইনও বিলুপ্তির ব্যবস্থা করা হোক।

সম্প্রতি তিন তালাক বিল পাশ হওয়ার পর সোশ্যাল মিডিয়ায় তার প্রশংসাও করতে দেখা গিয়েছিল তসলিমাকে।

এবার এই লেখিকা চান, যে পদ্ধতিতে বিজেপি সরকার ভারতের সংবিধান থেকে ৩৭০ ধারা বিলোপ করেছে, সেই পদ্ধতি প্রয়োগ করেই ইসলামিক আইন তুলে দেওয়া হোক।

টুইটারে তিনি লিখেছেন, ‘৩৭০ ধারার মতো অস্থায়ী আইন উঠে যাওয়ারই ছিল। শরিয়া আইন বা ইসলামিক আইনও তুলে দেওয়া উচিত। যে প্রক্রিয়ায় ৩৭০ ধারার বিলুপ্তি সম্ভব হয়েছে তা নারী-বিরোধী শারিয়া আইন সরানোর জন্যও প্রয়োজন। প্রত্যেকের জন্য সমান আইন হওয়া জরুরি।’

কী এই শরিয়া আইন? মুসলিম পার্সোনাল ল অ্যাপ্লিকেশন আইন, ১৯৩৭-কেই বোঝাতে চেয়েছেন তসলিমা। বিয়ে থেকে শুরু করে একাধিক সামাজিক বিষয়ে এই আইনই মেনে চলে মুসলিম সম্প্রদায়। তবে যাঁরা স্পেশ্যাল ম্যারেজ অ্যাক্ট, ১৯৫৪-র নিয়মে বিয়ে করেছেন, তাঁরা এই আইনের আওতায় পড়েন না। তসলিমা চান, ধর্মের নামে একই দেশে যেন ভিন্ন আইন না থাকে।

শরিয়া আইন তুলে দিয়ে গোটা ভারতের জন্য একটিই আইন বলবৎ হওয়া উচিত বলেই মত তাঁর। যদিও লেখিকার এই মন্তব্যেরও বিরোধিতা করেছেন অনেকে। আবার অনেকে তসলিমার পাশে দাঁড়িয়ে আশাও প্রকাশ করেছেন- মোদি সরকার নিশ্চয়ই এমন আইন প্রণয়ন করবে।

সূত্র: সংবাদ প্রতিদিন

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা