kalerkantho

রবিবার । ২১ জুলাই ২০১৯। ৬ শ্রাবণ ১৪২৬। ১৭ জিলকদ ১৪৪০

হামলার শিকার শিক্ষককে মমতার ফোন, আর্থিক সহায়তার ঘোষণা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৬ জুন, ২০১৯ ১৯:১৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



হামলার শিকার শিক্ষককে মমতার ফোন, আর্থিক সহায়তার ঘোষণা

জয় শ্রীরাম স্লোগান না দেয়ার জেরে চলন্ত ট্রেন থেকে ফেলে দেয়া হয় মুহাম্মদ শাহরুখ হালদারকে। ওই ঘটনায় আহত হন আরেকজন। বুধবার সেই দু'জনকে ফোন করলেন ভারতের পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি। 

জানা গেছে, দু'জনকে ফোন করেই মুখ্যমন্ত্রী পুরো ঘটনা শোনেন। দু'জনের জন্যই ৫০ হাজার টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেয়ার কথাও জানান তিনি।

প্রসঙ্গত, গত বৃহস্পতিবার দুপুরে হুগলি যাওয়ার জন্য দক্ষিণ ২৪ পরগনার ক্যানিং থেকে শিয়ালদাগামী লোকাল ট্রেন ধরেছিলেন শাহরুখ। ২৬ বছর বয়সী শাহরুখ জানান, ট্রেনে কিছু লোকজন চিৎকার করছিলেন। পাশের কামরায় যে কোনো গন্ডগোল চলছে, তা বোঝা যাচ্ছিল। হঠাৎ করেই তাদের মধ্যে কয়েকজন আমাদের কামরাতেও চলে আসে।

তিনি আরো বলেন, পোশাক, মাথায় টুপি ও দাড়ি দেখেই আমাকে 'ইচ্ছাকৃতভাবে চিহ্নিত' করা হয়। আমায় গালিগালাজ করা হয়। প্রতিবাদ করলে মারধর করে। ওরা আমায় ঘিরে রাখে, জয় শ্রীরাম স্লোগান দিতে বাধ্য করতে থাকে। 

তবে জয় শ্রীরাম স্লোগান দিতে রাজি হননি মাদ্রাসা শিক্ষক। ফলে মারধর বেড়ে যায়। ট্রেন পার্ক সার্কাস স্টেশনে ঢোকার সময় কোনো রকমে পালানোর চেষ্টা করেন শাহরুখ। তবে ব্যর্থ হওয়ায় বেধড়ক মারধর করা হয় তাকে। এরপর চলন্ত ট্রেন থেকেই প্ল্যাটফর্মে ফেলে দেওয়া হয় তাকে। 

প্ল্যাটফর্মের লোকজন শাহরুখকে উদ্ধার করলে বালিগঞ্জ রেল পুলিশে অভিযোগ দায়ের করেন তিনি। ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে বলে জানিয়েছে রেল পুলিশ। ৩৪১, ৩২৩, ৩২৫, ৫০৬ ধারায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। 

এ ব্যাপারে ভারতের পূর্ব রেলের মুখ্য জনসংযোগ কর্মকর্তা নিখিল চক্রবর্তী জানান, তদন্ত চলছে। স্টেশনগুলোতে নিরপত্তা বৃদ্ধির বিষয়টিও দেখছে রেল। এদিকে, কলকাতা পুলিশও বিষয়টি খতিয়ে দেখছে বলে জানা গেছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা