kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৫ জুন ২০১৯। ১১ আষাঢ় ১৪২৬। ২২ শাওয়াল ১৪৪০

পশ্চিমবঙ্গে জুনিয়র চিকিৎসকদের আন্দোলন, দু'দিনে ২৮ রোগীর মৃত্যু

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৩ জুন, ২০১৯ ১৭:৪৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পশ্চিমবঙ্গে জুনিয়র চিকিৎসকদের আন্দোলন, দু'দিনে ২৮ রোগীর মৃত্যু

পশ্চিমবঙ্গে জুনিয়র চিকিৎসকদের আন্দোলনের জেরে উত্তরবঙ্গ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে অচলাবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। চিকিৎসা পরিষেবা বন্ধ থাকায় গত দু'দিনে ২৮ জন রোগী মারা গেছে। এ ঘটনায় উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়েছে হাসপাতাল চত্বরে।

এনআরএস হাসপাতালে জুনিয়র চিকিৎসকদের ওপর হামলার ঘটনায় পশ্চিমবঙ্গের একাধিক হাসপাতালে উত্তেজনা বিরাজ করছে। এনআরএসের পাশাপাশি কলকাতার এসএসকেএম হাসপাতালের পরিস্থিতিও ক্রমশ জটিল হয়ে উঠছে। জানা গেছে, উত্তরবঙ্গ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালেও একই পরিস্থিতির দিকে যাচ্ছে।

হাসপাতালগুলোতে জরুরি বিভাগ খোলা না থাকায় একের পর এক রোগীর মৃত্যু নিয়ে চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ছে। অনেকেই অভিযোগ করছেন, হাসপাতালে রোগীর মৃত্যু স্বাভাবিক ঘটনায় পরিণত হয়ে গেছে। প্রতিদিন গড়ে সেখানে অন্তত ১০ থেকে ১২ জন রোগীর মৃত্যু হয়।

তবে জরুরি বিভাগের পরিষেবা বন্ধ থাকার কারণে ২৪ ঘণ্টায় ২৫ জনেরও বেশি রোগী মারা গেছে এবং ৪৮ ঘণ্টায় সেই সংখ্যা আরো বেশি। 

এনআরসি হাসপাতালের প্রধান জানান, মঙ্গলবার ১৫ জন এবং বুধবার ১৩ জন রোগীর মৃত্যু হয়েছে। তাদের মধ্যে চারজন নবজাতক। বৃহস্পতিবার আরো সাতজনের মৃত্যু হয়েছে।

বুধবারের ন্যায় বৃহস্পতিবারও হাসপাতালের বহির্বিভাগ বন্ধ রয়েছে। টিকিট কাউন্টারেরও দরজা পর্যন্ত বন্ধ রয়েছে। দূর থেকে আসা রোগীরা এসে ফিরে যাচ্ছেন।

বর্ধমান, বাঁকুড়া ও মুর্শিদাবাদ মেডিকেল কলেজেও একই দৃশ্য। আর মুর্শিদাবাদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের জেনারেল ফিজিশিয়ান বিভাগের টিকিট বিক্রির পরেও রোগীদের চিকিৎসা দেওয়া হয়নি। টিকিট কেটে রোগীরা ঘণ্টার পর ঘণ্টা সেখানে লাইনে দাঁড়িয়ে থেকে পরে ফিরে গেছেন।

মন্তব্য