kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ২৭ জুন ২০১৯। ১৩ আষাঢ় ১৪২৬। ২৩ শাওয়াল ১৪৪০

মায়ের দ্বিতীয় বিয়ে নিয়ে ফেসবুকে ছেলের গর্বিত ঘোষণা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৩ জুন, ২০১৯ ১২:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



মায়ের দ্বিতীয় বিয়ে নিয়ে ফেসবুকে ছেলের গর্বিত ঘোষণা

দ্বিতীয় স্বামীর সঙ্গে গোকুলের মা

মায়ের দ্বিতীয় বিয়ের বিষয়টা বহু সন্তানই মন থেকে মেনে নিতে পারেন না। তবে এ ক্ষেত্রে নিয়ম ভেঙেছেন এক তরুণ। গোকুল শ্রীধর নামের এই তরুণ ভারতের কেরালার বাসিন্দা । পেশায় ইঞ্জিনিয়ার তিনি। একটি ফেসবুক পোস্টে তিনি গর্বের সঙ্গে সবাইকে জানিয়েছেন তাঁর মায়ের দ্বিতীয় বিয়ের কথা। নিজের মাকেই সমর্থন করেছেন গোকুল। আবেগপ্রবণ একটি ফেসবুক পোস্টের মাধ্যমে সকলের সঙ্গে ভাগ করে নিয়েছেন নিজের আনন্দ। 

মায়ের দ্বিতীয় বিয়ে নিয়ে কে কী বলবেন তা নিয়ে মাথা ঘামাতে মোটেও রাজি নন গোকুল। তিনি চান নতুন জীবনে নতুন মানুষের সঙ্গে তার মা খুশি থাকুন। নিজের ফেসবুক পোস্টে মায়ের দ্বিতীয় স্বামীর সঙ্গেই ছবি শেয়ার করেছেন তিনি। সেখানে লিখেছেন, অনেকেই এখনও দ্বিতীয় বিয়ের ব্যাপারটা মেনে নিতে পারেন না। যারা এই মানসিকতায় বিশ্বাসী তাদের কাছে অনুরোধ দয়া করে এই পোস্ট দেখবেন না।

গোকুল শ্রীধর

জানা গেছে, দিনের পর দিন নিজের প্রথম স্বামীর কাছে শারীরিকভাবে অত্যাচারিত হয়েছিলেন গোকুলের মা। কিন্তু মুখ বুজে দীর্ঘদিন সব সহ্য করেছেন তিনি। 

গোকুল বলছেন, একবার দেখেছিলাম মার খেয়ে মার কপাল ফেটে গিয়েছিল। ঝরঝর করে রক্ত বেরোচ্ছিল। মা একটুও কাঁদেনি। পরে জিজ্ঞেস করেছিলাম কেন সব সহ্য করো? মা বলেছিল, আমার জন্য।

অনেক বড় বয়স পর্যন্ত নিজেকেই অপরাধী মানতেন গোকুল। তার কথায়, মা আমার কথা ভেবেই সব সহ্য করতেন, যাতে আমার বড় হওয়ায় কোনও খারাপ প্রভাব না পড়ে। যেদিন ওই বাড়ি ছেড়ে বেরিয়েছিলাম সেদিনই ঠিক করেছিলাম বড় হয়ে মায়ের আবার বিয়ে দেবো। আমায় বড় করার জন্য অনেক আত্মত্যাগ করেছেন মা। এবার মা একটু সুখে থাকুক। আনন্দে থাকুক।


গোকুল বলেছেন, মায়ের আত্মত্যাগের কথা ভাষায় বর্ণনা সম্ভব নয়। নিজের অনেক স্বপ্ন বিসর্জন দিয়েছেন। সবসময় আমার ভালো থাকার দিকে খেয়াল রেখেছেন। এবার মা একটু আনন্দে থাকুক।

ফেসবুকে ইতিমধ্যেই ভাইরাল এই তরুণের পোস্ট। অসংখ্য লাইক আর কমেন্টের বন্যায় ভেসে যাচ্ছে গোকুল শ্রীধরের নিউজ ফিড। তার কেবল একটাই কথা, মা কেবল আমার জন্যই বাঁচত। অনেক কষ্ট সহ্য করেছে। এবার আশা করি মা সুখে থাকবে। তাই মায়ের জীবনের এই বিশেষ দিনের কথা গোপন না করে, সকলের সঙ্গে শেয়ার করলাম।

সূত্র : দ্য ওয়াল 

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা