kalerkantho

বুধবার। ১৯ জুন ২০১৯। ৫ আষাঢ় ১৪২৬। ১৫ শাওয়াল ১৪৪০

ফ্লোরিডার ফাস্টফুডে তেলাপোকা, ইঁদুর, পোকামাকড়

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৩ মে, ২০১৯ ১৭:৪০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ফ্লোরিডার ফাস্টফুডে তেলাপোকা, ইঁদুর, পোকামাকড়

রেঁস্তোরাটির ফাস্টফুডে তেলাপোকা,পোকামাকড় পাওয়া গেছে

যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডা অঙ্গরাজ্যের একটি রেঁস্তোরার ফাস্টফুড খাবারে তেলাপোকা, ইঁদুর ইত্যাদি পোকামাকড় পাওয়া গেছে। সম্প্রতি এই রেঁস্তোরার খাবারের কিছু ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রকাশ করা হয়। এরপর ফ্লোরিডা অঙ্গরাজ্যের স্বাস্থ্য অধিদপ্তর রেঁস্তোরাটি বন্ধ করে দেয়। 

ফ্লোরিডার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা গতকাল নিশ্চিত করেছেন যে, ব্যাবকক রোডে অবস্থিত রেঁস্তোরাটির বিরুদ্ধে 'অনৈতিক কাজ'-এর অভিযোগ উঠার পর সেটি বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। 

জানা গেছে, রেঁস্তোরাটির খাবার পরিদর্শনের একটি প্রতিবেদন স্থানীয় গণমাধ্যমে সর্বপ্রথম প্রকাশিত হয়। ওই প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, রেঁস্তোরাটির কিচেন এবং খাবার সংরক্ষণের স্থানে ছোট-ছোট পোকামাকড়' পাওয়া গেছে। শুধু তাই নয়, মিল্কসেক মেশিনের মধ্যেও 'উড়ন্ত জীবিত পোকামাকড়' মিলেছে। 

পুরো প্রতিবেদনটি অনলাইনে প্রকাশিত হয়েছে। এতে উল্লেখ করা হয়েছে, খাবারদাবার মোড়ানোর কাগজ এবং সসের মধ্যে মৃত পোকামাকড় পাওয়া গেছে। 
এদিকে  রেঁস্তোরাটির সামনে টাঙ্গানো একটি সাইনবোর্ডে এখন লিখা রয়েছে, 'জনস্বাস্থ্য রক্ষা করতে ও নিরাপদ রাখতে এই প্রতিষ্ঠানটি বন্ধ রয়েছে।'

চলতি সপ্তাহের শুরুতে রেঁস্তোরাটির একজন সাবেক কর্মী কিছু ছবি ও ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেন। এরপরই স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে ওই অভিযোগ করা হয়। 

রেঁস্তোরাটির সাবেক ওই কর্মীর নাম জাইলিন লাওসান। তিনি চলতি সপ্তাহে রেঁস্তোরাটির বেহাল দশা জনসম্মুখে তুলে ধরতে সোশ্যাল মিডিয়ায় ধারাবাহিকভাবে ছবি, স্ক্রিনশট ও ভিডিও প্রকাশ করেন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি পোস্টে লাওসান জানান, তিনি রেঁস্তোরাটিতে ৪ বছর ম্যানেজারের পদে কাজ করেছেন। জনসাধারণকে সতর্ক করতেই তিনি ছবি ও ভিডিও শেয়ার করেছেন। 

তিনি বলেন, রেঁস্তোরাটির সঙ্গে এখন আর আমি চুক্তিভুক্ত নই। তাই  রেঁস্তোরাটিতে গিয়ে খাবার গ্রহীতারা কী ধরণের খাবার খাচ্ছেন, এটা আমি মানুষকে জানানোর অধিকার রাখি। 

জাইলিন জানান, তার পোস্টটি ৩ হাজার ৫০০ বারেরও বেশি শেয়ার হয়েছে। এতে কমেন্টও পড়েছে সহস্রাধিক। 

সূত্র : নিউজউইক 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা