kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১২ ডিসেম্বর ২০১৯। ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ১৪ রবিউস সানি     

শীতের মৌসুমে চুল পড়ায় করণীয়

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৬ নভেম্বর, ২০১৫ ০০:৪২ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



শীতের মৌসুমে চুল পড়ায় করণীয়

শীতের শুরুতে চুল হঠাৎ চুল পড়ার সমস্যায় অনেকেই ভোগেন। আবহাওয়া হঠাৎ শুষ্ক হয়ে যাওয়ায় খুস্কি হয় মাথায়। আবহাওয়ার পরিবর্তন মানিয়ে নিতেও সময় নেয় চুল। ফলে চুলের স্বাস্থ্য খারাপ হতে থাকে। জেনে নিন চুল পড়া রোখার কিছু ঘরোয়া টোটকা।

১। অ্যালয় ভেরা- চুল পড়া রুখতে অব্যর্থ অ্যালয় ভেরা। দোকানে অ্যালয় ভেরা জেল কিনতে পাওয়া যায়। বাড়িকে কয়েকটা ঘৃতকুমারীর পাতা থেঁতো করেও জেল বানিয়ে নিতে পারেন। এই জেল মাথায় লাগিয়ে ৩০ মিনিট রাখুন। হালক গরম জলে চুল ধুয়ে ফেলুন। রোজ সকালে অ্যালয় ভেরার রস খেলেও উপকার পাবেন।

২। ডিম- ডিমের মধ্যে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন ও সালফার রয়েছে। ঘন চুলের জন্য নিয়মিত প্রোটিনের প্রয়োজন। একটা ডিমের সাদা অংশের সঙ্গে এক টেবিল চামচ অলিভ অয়েল মেশান। এই মিশ্রণ সারা মাথায় লাগিয়ে ২০ মিনিট রেখে দিন। ঠান্ডা জলে ভাল করে ধুয়ে নিন।

৩। অ্যাভোকাডো- একটা অ্যাভোকাডো ও একটা পাকা কলা চটকে নিন। এই মিশ্রণ চুলে লাগিয়ে ৩০ মিনিট রাখুন। ভাল করে শুকিয়ে গেলে শ্যাম্পু করে নিন। কোনও ভাল কন্ডিশনার লাগিয়ে নেবেন।

৪। আমলকী- আমলকীতে প্রচুর পরিমাণ ভিটামিন এ ও সি থাকে। যা চুলের পুষ্টিকর খাদ্য। আমলকী গুঁড়ো দোকানে কিনতে পাওয়া যায়। কিনে জলে গুলে পেস্ট বানিয়ে মাথায় মাখতে পারেন। অথবা কাঁচা আমলকী সরাসরিও চুলে লাগাতে পারেন। রোজ সকালে আমলকীর রস খেলেও উপকার পাবেন।

৫। মেথি- দুই থেকে তিন টেবিল চামচ মেথি সারা রাত জলে ভিজিয়ে রাখুন। সকালে সেই জল দিয়ে চুল ধুয়ে নিন। এতে খুস্কিও কমে যাবে।

৬। হেনা- বহু যুগ ধরেই চুলের যত্ন নিয়ে আসছে হেনা। চুলের গোড়া শক্ত করে হেনা চুল পড়া রোখে। হেনা পাতা বেটে বা হেনা পাতা গুঁড়ো জলে গুলে দুই থেকে তিন ঘণ্টা চুলে লাগিয়ে রেখে জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। চুলের স্বাস্থ্যও ভাল হবে।

৭। নারকেল তেল- দুর্বল চুলের ভেঙে যাওয়া রুখতে নারকেল তেল খুব ভাল। মাথায় হট অয়েল মাসাজ করে সারা রাত রাখুন। সকালে শ্যাম্পু করে নিন।

৮। গ্রিন টি- প্রচুর পরিমাণ অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট থাকার কারণে গ্রিন টি খুব ভাল কন্ডিশনার। এক কাপ জলে গ্রিন টি ভিজিয়ে রাখুন। ঠান্ডা হলে এই জল দিয়ে চুল ধুয়ে নিন। চুল নরম, ঘন হবে। পড়াও কমবে।

- সূত্র : আনন্দবাজার পত্রিকা

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা