kalerkantho

রবিবার । ৯ মাঘ ১৪২৮। ২৩ জানুয়ারি ২০২২। ১৯ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

ম্যাক্সওয়েলের কথাতেই রিভিউ নেননি ওয়ার্নার!

অনলাইন ডেস্ক   

১২ নভেম্বর, ২০২১ ১৩:৫১ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ম্যাক্সওয়েলের কথাতেই রিভিউ নেননি ওয়ার্নার!

পাকিস্তানের ১৭৬ রানের জবাব দিতে নেমে দারুণ খেলছিলেন ডেভিড ওয়ার্নার। তার ব্যাটে দেখা যাচ্ছিল শটের ঝলক। ইনিংসের মাঝপথে অজিরা যখন ভীষণ চাপে পড়ে যায়, ঠিক তখনই অদ্ভুতভাবে আউট হন ওয়ার্নার। বল তার ব্যাট না ছুঁলেও তিনি হাঁটা দেন ড্রেসিংরুমের দিকে।

বিজ্ঞাপন

যদিও রিভিউয়ের সুযোগ ছিল। সেটা নেননি ওয়ার্নার। রুদ্ধশ্বাস ম্যাচে ম্যাথু ওয়েডের তিন ছক্কায় অস্ট্রেলিয়া জিতে গেলেও ওয়ার্নারের সেই আউট নিয়ে আলোচনা থামেনি।

অস্ট্রেলিয়ার ইনিংসের ১১তম ওভারের ঘটনা।  শাদাব খানের করা প্রথম বলেই উইকেটের পেছনে ধরা পড়েন ওয়ার্নার। আম্পায়ারও আঙুল তোলেন। কিন্তু সেটা আদৌ আউট কিনা, তা নিয়ে দর্শকদের মনে বিরাট সন্দেহ ছিল। ওয়ার্নারেরও সন্দেহ হয়েছিল। ৩ উইকেট হারিয়ে ফেলা অস্ট্রেলিয়া ওয়ার্নারের ব্যাটেই এগিয়ে যাচ্ছিল। কিন্তু ৩০ বলে ৪৯ রান করে তিনি আউট হওয়ার পর অজিরা ম্যাচ থেকে প্রায় ছিটকে গিয়েছিল।  কিন্তু সুযোগ থাকলেও ওয়ার্নার কেন রিভিউ নেননি?

ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে জয়ের নায়ক ম্যাথু ওয়েড বলেন, 'এটা নিয়ে খুব বেশি কথা বলার সুযোগ এখনও হয়নি। আশপাশ থেকে যা শুনেছি, তাতে একটা শব্দ হয়েছিল। ওয়ার্নার নিশ্চিত ছিল না। হতে পারে ব্যাটের হাতলে ঝাঁকি কিংবা তার ব্যাটে হাত লাগার শব্দ। সে যদিও মনে করছিল, ব্যাটে লাগেনি। তবে অপরপ্রান্তে গ্লেন ম্যাক্সওয়েল কিছু একটা শুনতে পেরেছিল। আর সত্যি বলতে, ব্যাট ছাড়া বলের কাছে আর কিছুই ছিল না। তখন হয়তো তার মনে হয়েছে, ব্যাটে বল লেগেছে। '

আউট হয়ে ফেরার পর একটা বল হাতে ওয়ার্নারকে পুরোটা সময় আক্ষেপ করতে দেখা গেছে। কারণ ততক্ষণে টিভি রিপ্লেতে দেখা গেছে, তিনি আউট নন। যদিও এজন্য বড় মূল্য দিতে হয়নি অজিদের। ওয়েড আরও বলেন, 'ওই পরিস্থিতিতে আসলে কাজটা কঠিন। কিছু সময় ব্যাটসম্যানরা বুঝে উঠতে পারে না ব্যাটে লেগেছে কিনা। অপরপ্রান্ত থেকে একটু হলেও নিশ্চয়তার প্রয়োজন হয়। এখানে সেটা হয়নি। ম্যাক্সি একটা শব্দ শুনেছিল। আশা করি, পরের ম্যাচে এরকম কিছু হবে না। দুটি রিভিউ আছে ব্যবহার করতে হবে। '



সাতদিনের সেরা