kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ৩০ নভেম্বর ২০২১। ২৪ রবিউস সানি ১৪৪৩

যেসব কারণে উত্তপ্ত হয়ে উঠতে পারে বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা ম্যাচ

অনলাইন ডেস্ক   

২৪ অক্টোবর, ২০২১ ১২:১৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



যেসব কারণে উত্তপ্ত হয়ে উঠতে পারে বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা ম্যাচ

শারজাহর মাটিতে আজ রবিবার বিকাল ৪টায় মুখোমুখি বাংলাদেশ আর শ্রীলঙ্কা। যে মাঠটিতে রবিবারের ম্যাচটি হবে সেটি অনেকটা ঢাকার মিরপুরের মতই এবং ঢাকার মাঠে সাম্প্রতিক মুখোমুখি ম্যাচগুলোতে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ভাল করেছে বাংলাদেশ। পরিসংখ্যানের বিচারে গত ৫টি মুখোমুখি ম্যাচে যদিও বাংলাদেশের চাইতে পিছিয়ে শ্রীলঙ্কা, কিন্তু দাসুন শানাকা মনে করেন বর্তমান অবস্থানে সাকিব-মাহমুদুল্লাহর দলটির চেয়ে তারা এগিয়ে আছেন।

২০১৮ সাল থেকেই শ্রীলঙ্কা ও বাংলাদেশের ক্রিকেটে বৈরি সম্পর্ক। তাই বাংলাদেশের বিপক্ষে খেলার আগে শ্রীলঙ্কার এই দলটি তেতে থাকবে। ২০১৮ সালে নিদাহাস ট্রফির একটি ম্যাচে মাঠেই আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত মেনে নিতে অস্বীকৃতি জানায় বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা। এই ম্যাচ শেষে বিখ্যাত 'নাগিন ড্যান্স' দিয়ে শ্রীলঙ্কার ক্রিকেট দলের সামনে উদযাপন করেন বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা।এরপর ২০২০ সালে শ্রীলঙ্কা বাংলাদেশ ক্রিকেট দলকে কোভিড পরিস্থিতিতে কিছু শর্ত দিয়ে টেস্ট খেলতে আমন্ত্রণ জানায়।

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন তখন বলেছিলেন, টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ম্যাচের জন্য শ্রীলঙ্কা তাদের দেশে যেসব শর্ত দিয়েছে তা মেনে খেলা সম্ভব হবে না বাংলাদেশের। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের মতে শর্তগুলো ছিল 'অবাস্তব ও কঠিন'। শেষ পর্যন্ত আর শ্রীলঙ্কা সফরে যাওয়া হয়নি বাংলাদেশের। তবে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল এখন একটা ইতিবাচক অবস্থানে আছে বলে মনে করেন কোচ রাসেল ডমিঙ্গো।

এখনও পর্যন্ত বিশ্বকাপে যে ধরনের উইকেটে খেলা হয়েছে তাতে বাংলাদেশের কোচ রাসেল ডমিঙ্গো আশাবাদী, তিনি বলেই দিয়েছেন মিরপুরের সাথে অনেক মিল খুঁজে পাচ্ছেন। কে জানে বহুল সমালোচিত মিরপুরের অভিজ্ঞতাই বাংলাদেশের কাজে আসে কি না এই বিশ্বকাপের মঞ্চে। তবে মুস্তাফিজুর রহমানের দিকে শ্রীলঙ্কার ক্রিকেটারদের বাড়তি নজর থাকবে। আইপিএলের দল রাজস্থান রয়্যালসের হয়ে গত এক মাস ধরেই তিনি সংযুক্ত আরব আমিরাতে আছেন। শারজাহ ক্রিকেট স্টেডিয়ামে যে ধরনের মাঠ তা মুস্তাফিজের জন্য আদর্শ।

-বিবিসি বাংলা অবলম্বনে



সাতদিনের সেরা