kalerkantho

শুক্রবার । ২ ডিসেম্বর ২০২২ । ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ ।  ৭ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

ক্রিকেটের পর পথশিশুদের ফুটবল বিশ্বকাপ

ভাগ্যবঞ্চিতরা যাচ্ছেন কাতারে

ক্রীড়া প্রতিবেদক   

৪ অক্টোবর, ২০২২ ২১:৩০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ভাগ্যবঞ্চিতরা যাচ্ছেন কাতারে

কেউ ছিলেন গৃহকর্মী। কেউ কমলাপুর রেলস্টেশনে বিক্রি করতেন পানি। কেউ বা বিমানবন্দর এলাকায় করতেন চুরি। মানসিক ভারসাম্যহীনও ছিল একজন।

বিজ্ঞাপন

জন্ম তাঁদের পথে, আশ্রয়ও সেই পথে। ভাগ্যবঞ্চিত এমন ১০ জন পথশিশু এখন কল্পনার রাজ্যে! লিওনেল মেসি, ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো, নেইমার, কিলিয়ান এমবাপ্পেরা কয়েক দিন পর যেখানে রাঙাতে চলেছেন ফুটবল বিশ্বকাপ, সেই কাতারে তাঁরা অংশ নিচ্ছেন পথশিশুদের বিশ্বকাপে। প্রায় ১০ মাস বসিলা মাঠে অনুশীলন করায় বিশ্বকাপে ভালো কিছুর স্বপ্ন নিয়েই যাচ্ছে বাংলাদেশ নারী দল।

কাতারের আর রাইয়ান এডুকেশন সিটি স্টেডিয়ামে অংশ নেবে ২৪ দেশের ২৮টি দল। সেখানেই বাংলাদেশের হয়ে খেলবেন জেসমিন আক্তার (অধিনায়ক), ইতি আক্তার, জান্নাতুল ফেরদৌস, তাহমিনা আক্তার, হামিদা আক্তার, সাথী আক্তার, আফরিন খাতুন, মীম আক্তার, ফাইরুজ আবিদা ও তানিয়া আক্তার। ৮-১৫ অক্টোবর হতে যাওয়া এই বিশ্বকাপে অংশ নিতে বাংলাদেশ দল ঢাকা ছাড়বে ৬ অক্টোবর। এর আগে গতকাল সংবাদ সম্মেলনে অধিনায়ক জেসমিন আক্তার জানালেন, ‘২০১৯ সালে ইংল্যান্ডে পথশিশুদের ক্রিকেট বিশ্বকাপে সেমিফাইনাল খেলেছিল বাংলাদেশ। আমরাও কাতারে এমন কিছুই করতে চাই। ’

ঢাকা শহরের হাজারও পথশিশুদের মধ্যে ১০ জনকে বাছাইয়ের কাজটা করেছে লোকাল এডুকেশন অ্যান্ড ইকোনমিক ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশন বা লিডো। ইংল্যান্ডে পথশিশুদের আন্তর্জাতিক সংগঠনের কার্যালয়ে এই মেয়েদের নানা রকম তথ্য পাঠিয়েছে তারা। সেখানে অনুমোদন মিললেও অনেকের পিতৃপরিচয় না থাকায় সমস্যা হচ্ছিল পাসপোর্ট তৈরিতে। সেই জটিলতা কাটিয়ে নারীদের এই দলকে কাতারে পাঠাতে পারছেন বলে খুশি লিডোর প্রতিষ্ঠাতা ও নির্বাহী পরিচালক ফরহাদ হোসেন। সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘মেয়েদের মুখে হাসি ফোটাতে পারছি বলে খুশি আমরা সবাই। ইউএস-বাংলা বিমান টিকিট দিয়েছে আমাদের। কেএফসি দিয়েছে জার্সি। এ রকম আরো অনেক প্রতিষ্ঠান সাহায্য করেছে নানাভাবে। সবার প্রতি আমরা কৃতজ্ঞ। ’

বাংলাদেশের কোচের দায়িত্বে আছেন নাজমা আক্তার। বিশ্বকাপের আগে দলের প্রস্তুতিতে খুশি তিনি, ‘আমরা বসিলা মাঠে প্রায় ১০ মাস অনুশীলন করেছি। পরিকল্পনামতো খেলতে পারলে আমাদের ভালো কিছু করার সুযোগ আছে। ’



সাতদিনের সেরা