kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৯ নভেম্বর ২০২২ । ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ ।  ৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

পালানোর উপায় নেই; আত্মসমর্পণের তারিখ জানালেন লামিচানে

অনলাইন ডেস্ক   

১ অক্টোবর, ২০২২ ১৯:৫০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পালানোর উপায় নেই; আত্মসমর্পণের তারিখ জানালেন লামিচানে

নিজ দেশে তার বিরুদ্ধে জারি হয়েছে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা। অভিযোগ গুরুতর। অপ্রাপ্তবয়স্ক এক কিশোরীকে ধর্ষণ। দেশের বাইরে থেকেও পার পাচ্ছেন না নেপালের তারকা লেগ স্পিনার সন্দ্বীপ লামিচানে।

বিজ্ঞাপন

প্রয়োজনে ইন্টারপোল দিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করার হুঁঁশিয়ারি দিয়েছে নেপালের প্রশাসন। অজ্ঞাত স্থান থেকে টুইটারে বারবার দেশে ফেরার কথা বললেও ফিরছিলেন না লামিচানে। তবে এবার তার সামনে আর উপায় নেই। তাই জানিয়ে দিলেন দেশে ফেরার তারিখ।

গত আগস্টে ১৭ বছরের এক কিশোরী ২২ বছর বয়সী লামিচানের বিরুদ্ধে ধর্ষণের মামলা করেন।  নিজেকে লামিচানের ভক্ত হিসেবে উল্লেখ করে তিনি অভিযোগ করেন যে, গত ২১ আগস্ট লামিচানের সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে তিনি ধর্ষণের শিকার হন। মেয়েদের হোস্টেল আটটার মধ্যে বন্ধ হয়ে যাওয়ায় হোটেলে লামিচানের সঙ্গে রাত কাটাতে বাধ্য হন ওই কিশোরী। প্রথমে তিনি আলাদা ঘরে থাকতে চাইলে সেটি হতে দেননি লামিচানে। তার বদলে নিজের ঘরে ডেকে এনে ওই কিশোরীকে দুই বার ধর্ষণ করেন। ওই কিশোরীর বাবা-মা অভিযোগ জানানোর পর পুলিশ তদন্ত করে এই তথ্য জানতে পেরেছে।

এরপর তার বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করে কাঠমান্ডু ডিস্ট্রিক্ট আদালত। গত ২২ আগস্ট কেনিয়া সফর ও সিপিএল খেলার উদ্দেশে কাঠমান্ডু ছাড়েন লামিচানে। তার আগের রাতে ওই কিশোরীকে তিনি ধর্ষণ করেন বলে অভিযোগ। গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারির পর লামিচানেকে নিষিদ্ধ করে নেপাল ক্রিকেট বোর্ড। যদিও বরাবরই সোশ্যাল সাইটের মাধ্যমে এই অভিযোগ অস্বীকার করে আসছেন লামিচানে। এবার তিনি সোশ্যাল মিডিয়ায় লিখেছেন, 'আমি ৬ অক্টোবর দেশে ফিরছি। আমার বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ নিয়ে আইনি লড়াই লড়ব। আমি অত্যন্ত আশাবাদী। আমি নির্দোষ। দেশের বিচারব্যবস্থার উপর আমার পূর্ণ আস্থা আছে। আশা করছি দ্রুত সুবিচার পাব। '



সাতদিনের সেরা