kalerkantho

শনিবার । ১ অক্টোবর ২০২২ । ১৬ আশ্বিন ১৪২৯ ।  ৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

নারী ক্রিকেটের প্রথম এফটিপিতে ৫০ ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ

অনলাইন ডেস্ক   

১৬ আগস্ট, ২০২২ ২১:০৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নারী ক্রিকেটের প্রথম এফটিপিতে ৫০ ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ

ক্রিকেট ইতিহাসে প্রথমবারের মতো নারীদের ফিউচার ট্যুর প্রোগ্রাম (এফটিপি) চূড়ান্ত করেছে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি)। ২০২২-২৫ চক্রে নারীদের জন্য আইসিসির প্রথম এফটিপিতে ৫০টি ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। এর মধ্যে আছে ২৪টি ওয়ানডে ও ২৬টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ। কোনো টেস্ট ম্যাচ নেই।

বিজ্ঞাপন

তাই টেস্টের জন‍্য বাংলাদেশের মেয়েদের অপেক্ষা আরও বাড়ছে।

আইসিসির ২০২২-২৫ চক্রের এফটিপিতে ১০টি বাংলাদেশ দল মোট ৩০১টি ম্যাচ খেলার সুযোগ পাবে। যেখানে ১০টি দলই চারটি করে হোম ও অ্যাওয়ে সিরিজ খেলবে। তাতে সর্বমোট ৭টি টেস্ট, ১৩৫টি ওয়ানডে এবং ১৫৯টি টি-টোয়েন্টি হবে। ৭টি টেস্ট খেলবে ইংল্যান্ড-অস্ট্রেলিয়া-ভারত ও দক্ষিণ আফ্রিকা। হোম ও অ্যাওয়ে ভিত্তিতে এফটিপিতে ৮টি সিরিজ খেলবে বাংলাদেশের মেয়েরা। ঘরের মাঠে ভারত-অস্ট্রেলিয়ার মতো দলকে আতিথেয়তা দেবে। এরপর খেলতে হবে পাকিস্তান ও আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে।

বিদেশের মাটিতে বাংলাদেশ খেলবে নিউজিল্যান্ড-দক্ষিণ আফ্রিকা-শ্রীলঙ্কা ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে। আগামী ডিসেম্বরে নিউজিল্যান্ডের মাঠে তিনটি করে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি সিরিজ আছে। এরপর নতুন বছর জানুয়ারিতে শ্রীলঙ্কায় তিনটি করে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি ম্যাচ। ২০২৩ সালের জুন-জুলাইয়ে ঘরের মাঠে ভারতের বিপক্ষে তিনটি করে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি খেলবেন সালমা-রুমানারা।  ঘরের মাঠে পাকিস্তানের বিপক্ষে তিনটি করে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি সিরিজ অনুষ্ঠিত হবে ২০২৩ সালের অক্টোবর-নভেম্বরে।

পাকিস্তান সিরিজ শেষে দক্ষিণ আফ্রিকা সফর করবে বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দল । সেখানেও তিনটি করে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি ম্যাচ রয়েছে। ২০২৪ সালের মার্চে ঘরের মাঠে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে তিনটি করে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি খেলবে বাংলাদেশ। একই বছরের ডিসেম্বরে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে ঘরের মাঠে খেলবে তিনটি ওয়ানডে ও পাঁচটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ। এফটিপিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে আগামী বছরের অক্টোবর-নভেম্বরে তিনটি করে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টির সিরিজ দিয়ে শেষ হবে বাংলাদেশ নারী দলেল ২০২২-২৫ চক্রের খেলা।  



সাতদিনের সেরা