kalerkantho

শনিবার । ২৫ জুন ২০২২ । ১১ আষাঢ় ১৪২৯ । ২৪ জিলকদ ১৪৪৩

গোকুলামকে হারিয়ে আশায় কিংস

ক্রীড়া প্রতিবেদক   

২৪ মে, ২০২২ ১৮:৫৬ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



গোকুলামকে হারিয়ে আশায় কিংস

জিতলে সম্ভাবনা বেঁচে থাকবে আর হারলেই বাদ―এমন সমীকরণের ম্যাচে দুর্দান্ত জয় তুলে নিয়েছে বসুন্ধরা কিংস। ভারতের ক্লাব গোকুলাম কেরালাকে ২-১ ব্যবধানে হারিয়ে পরের রাউন্ডে যাওয়ার স্বপ্ন বেঁচে থাকল বাংলাদেশ চ্যাম্পিয়নদের। কিংসের হয়ে গোল করেছেন রবসন রোবিনহো ও নুহা মারং।

দিনের আরেক ম্যাচে রাত ৯টায় মুখোমুখি হবে মাজিয়া ও মোহনবাগান।

বিজ্ঞাপন

এই ম্যাচ ড্র হলে বা মাজিয়া জিতলেই জোনাল-সেমিফাইনালে পা দেবে কিংস। কিন্তু মোহনবাগান জিতলে হেড টু হেডে এগিয়ে থেকে পরের রাউন্ডে যাবে তারা। বাদ পড়বে কিংস। তিন ম্যাচে ৩ পয়েন্ট নিয়ে টুর্নামেন্ট থেকে বিদায় গোকুলাম কেরালার। সেই সঙ্গে বিদায় নিশ্চিত মাজিয়ারও।

বাঁচা-মরার ম্যাচে কলকাতার সল্ট লেক স্টেডিয়ামে শুরুর দুই-তিন মিনিটেই কেরালাকে চেপে ধরে কিংস। সুযোগ তৈরি করেও ফিনিশিংটা হচ্ছিল না রোবিনহোদের। উল্টো পঞ্চম মিনিটে কিংসের রক্ষণে কাঁপন ধরায় কেরালা। সহজ সুযোগ নষ্ট করেন মিডফিল্ডার জিথিন। মাঝমাঠ থেকে সতীর্থের থ্রু পাস ধরে অফসাইড ফাঁদ ভেঙে বক্সে ঢুকে শট নিলেও বল জালে রাখতে পারেননি।

ম্যাচের পরিস্থিতি বুঝে আক্রমণে যায় কিংসও। ১৫ মিনিটে বক্সের বাইরে থেকে নেওয়া সোহেল রানার গতির শট ব্লক করে দেন ডিফেন্ডার দোউবা আমিনউ। এরপর ২৩ মিনিটে মিগেলের প্রচেষ্টা দূরের পোস্ট ঘেঁষে বাইরে চলে যায়। ২৭ মিনিটে কেরালাকে রক্ষা করেন গোলকিপার রাকশিত দাগার। বাঁ প্রান্ত থেকে বক্সে ঢুকে কেরালার দুই ডিফেন্ডারকে কাটিয়ে রোবিনহোর নেওয়া শট লাফিয়ে হাতের স্পর্শে বাইরে ঠেলে দেন দাগার।

সেই রোবিনহোই কিংসকে স্বস্তি এনে দেন ৩৬ মিনিটে। ব্রাজিল এই ফরোয়ার্ডের চোখ-ধাঁধানো গোলে কেরালার রক্ষণ ভাঙতে সক্ষম হয় কিংস। বক্সের কোনা থেকে ডান পায়ের বাঁকানো শটে দূরের পোস্টে জাল খুঁজে নেন তিনি। ৪১ মিনিটে আবারও কেরালার রক্ষণ কাঁপান রোবিনহো। কিন্তু এবার আর লক্ষ্যে রাখতে পারেননি।

৫৪ মিনিটে রোবিনহো-নুহা রসায়নে ব্যবধান বাড়ায় কিংস। বাঁ প্রান্ত থেকে রোবিনহোর মাপা ক্রস গোলমুখে লাফিয়ে উঠে হেডে জালে জড়ান নুহা। ৭৫ মিনিটে এক গোল শোধ দেয় কেরালা। ডান প্রান্ত থেকে জসিমের ক্রসে ছয় গজ বক্সের সামনে বল নিয়ন্ত্রণে নিয়ে ডান পায়ের শটে জাল খুঁজে নেন ফ্লেচার। ৯০ মিনিটে অল্পের জন্য বেঁচে যায় কিংস। প্রায় ৩০ গজ দূর থেকে ফ্লেচারের নেওয়া ফ্রি কিক জিকোর হাতে লাগার পরও ক্রসবারে লেগে ফিরে আসে। শেষ দিকে রোবিনহোর প্রচেষ্টা কেরালা গোলকিপার ফিরিয়ে দিলে ব্যবধান বাড়ানো হয়নি কিংসের।



সাতদিনের সেরা