kalerkantho

মঙ্গলবার । ৪ মাঘ ১৪২৮। ১৮ জানুয়ারি ২০২২। ১৪ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

ব্যালন ডি’অর: পর্তুগালের সাংবাদিকই ভোট দেননি রোনালদোকে

অনলাইন ডেস্ক   

৫ ডিসেম্বর, ২০২১ ১৩:১৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ব্যালন ডি’অর: পর্তুগালের সাংবাদিকই ভোট দেননি রোনালদোকে

সপ্তমবারের মতো ফুটবলের সবচেয়ে মর্যাদার পুরস্কার ব্যালন ডি’অর জিতেছেন আর্জেন্টাইন মহাতারকা লিওনেল মেসি। গত সোমবার দিবাগত রাতে প্যারিসের আলো ঝলমলে থিয়েটার ডু চ্যাটেলেটের অডিটোরিয়ামে ইতিহাসের প্রথম ফুটবলার হিসেবে সপ্তম ব্যালন ডি'অর গ্রহণ করেন আর্জেন্টাইন অধিনায়ক।

২০২১ সালের ব্যালন ডি'অরের লড়াইয়ে মেসি পেছনে ফেলেছেন বায়ার্ন মিউনিখের পোলিশ স্ট্রাইকার রবার্ট লেভানদোস্কি ও চেলসির ইতালিয়ান তারকা জর্জিনহোকে। এবার এই লড়াইয়ে অনেক পিছিয়ে ছিলেন সময়ের আরেক অন্যতম সেরা তারকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো।

ফুটবলের সবচেয়ে মর্যাদার পুরস্কার ব্যালন ডি’অরজয়ী নির্বাচনের ক্ষেত্রে বিশেষ এক প্রক্রিয়া অনুসরণ করা হয়। প্রথমে ১৮০ জন নির্বাচিত সাংবাদিকের ভোটে ৩০ শীর্ষ ফুটবলারের প্রাথমিক তালিকা প্রকাশ করা হয়। এরপর সেখান থেকে ৫০ জন বিশেষজ্ঞ সাংবাদিক সেরা পাঁচ খেলোয়াড় নির্বাচন করেন। প্রত্যেক সাংবাদিক পাঁচজন খেলোয়াড়কে ক্রমানুসারে ভোট দিতে পারেন। যে খেলোয়াড়কে প্রথমে রাখবেন, সে খেলোয়াড় পাবেন ৬ পয়েন্ট। এভাবে ক্রমানুসারে ওই সাংবাদিকের তালিকায় দ্বিতীয়, তৃতীয়, চতুর্থ ও পঞ্চম ফুটবলার পাবেন যথাক্রমে ৪, ৩, ২ ও ১ পয়েন্ট।

এভাবে ৫০ জন বিশেষজ্ঞ সাংবাদিকের মোট ভোট থেকে হিসাব করা হবে কোন খেলোয়াড় মোট কত পয়েন্ট পেয়েছেন। যার প্রাপ্ত পয়েন্ট বেশি হয়, তার হাতেই উঠে ব্যালন ডি’অর। এবার সর্বোচ্চ পয়েন্ট পেয়েছেন মেসি। তাই তার হাতেই উঠেছে ব্যালন ডি’অর।

মেসির পয়েন্ট ছিল ৬১৩। ৫৮০ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে রবার্ট লেভানদোস্কি। এছাড়া জর্জিনহো ৪৬০, করিম বেনজেমা ২৩৯ পয়েন্ট, এনগোলো কান্তে ১৮৬ পয়েন্ট ও ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো ১৭৮ পয়েন্ট পেয়েছেন।

ব্যালন ডি’অরের এবারের আসরে রোনালদোর চেয়ে এগিয়ে ছিল ৫ জন। ২০১০ সালের পর এটাই ব্যালন ডি’অরে রোনালদোর সবচেয়ে খারাপ তালিকা। কিন্তু এই তালিকা তো হয়েছে ভোটের মাধ্যমে। নিজ দেশের সাংবাদিক জোয়াকিম রিটার ভোটও কপালে জুটেনি রোনালদোর।

পর্তুগাল সাংবাদিকের ভোটগুলো যারা পেয়েছে তারা হচ্ছেন:

প্রথম ভোট - এনগালো কান্তে

দ্বিতীয় ভোট - রবার্ট লেভানদোস্কি

তৃতীয় ভোট- কিলিয়ান এমবাপ্পে

চতুর্থ ভোট - জর্জিনহো

পঞ্চম ভোট- মোহাম্মদ সালাহ



সাতদিনের সেরা