kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১০ আষাঢ় ১৪২৮। ২৪ জুন ২০২১। ১২ জিলকদ ১৪৪২

মিরপুরে হেরে হত্যার হুমকি পেয়েছিলেন ডু'প্লেসিস ও তার স্ত্রী!

অনলাইন ডেস্ক   

১৮ মে, ২০২১ ১৯:৩৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মিরপুরে হেরে হত্যার হুমকি পেয়েছিলেন ডু'প্লেসিস ও তার স্ত্রী!

সেই ম্যাচে স্টাইরিসদের সঙ্গে লেগে গিয়েছিল ডু প্লেসিসের। ছবি : ক্রিকইনফো

২০১১ সালে মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে ওয়ানডে বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালে নিউজিল্যান্ডের কাছে ৪৯ রানে হেরে আসর থেকে বিদায় নিয়েছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। ওই হারের পর স্ত্রীসহ হত্যার হুমকি পেয়েছিলেন দলে থাকা প্রোটিয়াদের সাবেক অধিনায়ক ফাফ ডু'প্লেসিস। এতদিন পর ওই ম্যাচের স্মৃতি রোমান্থন করে ডু'প্লেসিস এই ঘটনার কথা প্রকাশ করেছেন।

টুর্নামেন্টের শেষ আটের লড়াইয়ে টস জিতে ব্যাট করতে নামে নিউজিল্যান্ড। দক্ষিণ আফ্রিকার বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে কিউইরা ৮ উইকেটে ২২১ রানের বেশি করতে পারেনি। জবাবে দক্ষিণ আফ্রিকা মাত্র ১৭২ রানে অল-আউট হয়ে ম্যাচ হেরে বসে! এমন হারের কারণে মৃত্যুর হুমকি পান ডু'প্লেসিস। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তাকে এবং তার স্ত্রী ইমারি ভিসেরাসহ হত্যার হুমকি দেওয়া হয়। সেটি ছিল ডু'প্লেসিসের ক্যারিয়ারের দশম ম্যাচ। ওই ম্যাচে ছয় নম্বরে ব্যাট হাতে নেমে ৪৩ বলে ৩৬ রান করেন তিনি।

ইএসপিএন ক্রিকইনফোর ক্রিকেট মান্থলিতে ওই ম্যাচের স্মৃতি রোমন্থন করে ডু'প্লেসিস বলেন, 'কোয়ার্টারফাইনালের ম্যাচ হেরে আমি হত্যার হুমকি পেয়েছিলাম। শুধু আমি নই আমার স্ত্রীকেও একই হুমকি দেওয়া হয়। ওমন ভয়ানক হুমকিতে আমার স্ত্রী মুষড়ে পড়েছিল। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এমন হুমকি পাওয়ার পর অবাকই হয়েছিলাম। তখন বিষয়টিকে ব্যক্তিগতভাবে নিয়েছিলাম। কিছু আক্রমণাত্মক কথাও বলা হয়, যা এখন আর মনে করতে চাচ্ছি না'।

হুমকির পর অনেক বেশি সতর্ক হয়ে পড়েন ডু'প্লেসিস দম্পতি। তার কাছে জীবন অনিরাপদ মনে হতে থাকে। ডু'প্লেসিস আরো বলেন, 'ওই ঘটনার পর আমরা নিজেদের অনেকটা গুটিয়ে নিই। অপরিচিত কারো সাথে মেলামেশা করিনি। নিজেদের বিষয়গুলো কারও সাথে শেয়ার করিনি। আমরা নিজেদের অনেকটাই গুটিয়ে নিয়েছিলাম। ক্যাম্প বা অনুশীলন চলাকালীন নিজেকে সেগুলোর মাঝেই সীমাবদ্ধ রাখার চেষ্টা করছিলাম। তবে যাই হোক, বড় কোনো দুর্ঘটনার শিকার হতে হয়নি। আমাদের কোনো সমস্যাও হয়নি'।



সাতদিনের সেরা