kalerkantho

মঙ্গলবার । ৮ আষাঢ় ১৪২৮। ২২ জুন ২০২১। ১০ জিলকদ ১৪৪২

করোনায় মা-বোন হারানো ক্রিকেটারের খোঁজই নেয়নি বিসিসিআই!

অনলাইন ডেস্ক   

১৫ মে, ২০২১ ২০:৩২ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



করোনায় মা-বোন হারানো ক্রিকেটারের খোঁজই নেয়নি বিসিসিআই!

ভারতে করোনার ভয়াল সংক্রমণের মাঝে বিসিসিআইয়ের বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ উঠেছে। সম্প্রতি মাত্র ১৪ দিনের মধ্যে নিজের মা ও বোনকে হারিয়েছেন ভারতীয় নারী দলের তারকা ক্রিকেটার বেদা কৃষ্ণমূর্তি। কিন্তু এরপরেও বিসিসিআইয়ের পক্ষ থেকে বেদার সঙ্গে  নাকি কোনো যোগাযোগ করা হয়নি! সোশ্যাল সাইটে সৌরভ গাঙ্গুলীর বোর্ডের বিরুদ্ধৈ এমন গুরুতর অভিযোগ এনেছেন সাবেক অজি অল-রাউন্ডার লিসা স্থালেকার।

টুইটারে লিসা লিখেছেন, 'বেদাকে আসন্ন সিরিজে দলে নাওয়ার বিষয়টা বোর্ডের দৃষ্টিভঙ্গির ব্যাপার। কিন্তু আমি যখন জানতে পারলাম যে তার সঙ্গে বিসিসিআই কোনো যোগাযোগ করেনি, তখন ভীষণ রাগ হয়েছে! কেউ জানতেও চায়নি বেদা কীভাবে পরিস্থিতির সঙ্গে মানিয়ে নিচ্ছে। যেখানে বেদা বিসিসিআইয়ের চুক্তিবদ্ধ ক্রিকেটার। একটা সত্যিকারের ভালো ক্রিকেট বোর্ড শুধু খেলোয়াড়দের খেলা নিয়েই মাথা ঘামায় না; বরং তারা সেই খেলোয়াড়ের প্রতি গভীর যত্নশীল হয়। বেদার সঙ্গে যা হয়েছে, তা অত্যন্ত হতাশাজনক।'

ভারতীয় বোর্ডের সঙ্গে নিজ দেশের ক্রিকেট বোর্ডের তুলনা টেনে লিসা লিখেন, 'আমি অস্ট্রেলিয়ার সাবেক ক্রিকেটার। তারপরেও  ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া আমার সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রাখে। তারা জানতে চায়, মহামারীর পরিস্থিতিতে আমি সবরকম সেবা পাচ্ছি কিনা! ভারতে এখনই এমন ব্যবস্থা চালু করা দরকার। এই মহামারীতে বহু খেলোয়াড় চাপ, ভয়, দুশ্চিন্তা এবং দুঃখের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে। যার প্রভাব তাদের ব্যক্তিগত জীবনে যেমন পড়বে, তেমনই খেলাতেও পড়বে।'

উল্লেখ্য, ভারতের হয়ে ৪৮টি ওয়ানডে ম্যাচ ও ৭৬টি টি-টোয়েন্টি খেলেছেন বেদা। অসাধারণ ব্যাটিংয়ের পাশাপাশি দুর্দান্ত ফিল্ডিংও করেন। গত মার্চে দেওধর ট্রফির কোয়ার্টার ফাইনালে খেলেছেন কর্ণাটকের হয়ে। সম্প্রতি দেশটির জাতীয় দলের নির্বাচকরা বেদাকে বাদ দিয়েই আসন্ন ইংল্যান্ড সফরের দল ঘোষণা করেছে। ওই সফরে ভারত ও ইংল্যান্ড টেস্ট, ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলবে। নিঃসন্দেহে বোর্ডের এই আচরণ স্বজন হারান বেদাকে মানসিকভাবে আরও দুর্বল করে দিয়েছে।



সাতদিনের সেরা