kalerkantho

বুধবার । ৯ আষাঢ় ১৪২৮। ২৩ জুন ২০২১। ১১ জিলকদ ১৪৪২

বোলারদের 'বাঁশ পেটা'য় অনুমোদন নেই এমসিসির

অনলাইন ডেস্ক   

১১ মে, ২০২১ ১৯:৪৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বোলারদের 'বাঁশ পেটা'য় অনুমোদন নেই এমসিসির

সেই বাঁশ (বামে) ও বাঁশ থেকে তৈরি ব্যাট হাতে গবেষক ড. ডার্শিল শাহ।

উইলো কাঠের পরিবর্তে বাঁশ দিয়ে ক্রিকেট ব্যাট বানিয়ে হইচই ফেলে দিয়েছিল কেমব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক। তবে শুরুতেই তাদের উৎসাহে জল ঢেলে দিল মেরিলিবোন ক্রিকেট ক্লাব (এমসিসি)। ব্যাটসম্যানের হাতে বাঁশের ব্যাট তুলে দেওয়ায় তাদের আপত্তি আছে। ক্রিকেটের বর্তমান আইনে কাঠ ছাড়া অন্য কোনো কিছুর তৈরি ব্যাট দিয়ে খেলার সুযোগ নেই বলে পরিস্কার ঘোষণা দিয়েছে এমসিসি।

গবেষক দলের প্রধান দার্শিল শাহ বলেছিলেন, উইলো কাঠ দ্রুতই বিলুপ্ত হয়ে যাচ্ছে। তাই এই কাঠ দিয়ে তৈরি ব্যাট বেশ উচ্চমূল্য দিয়ে কিনতে হয়। বিকল্প হিসেবে তারা বাঁশ দিয়ে বিশেষ ধরনের এই ব্যাট তৈরি করেছেন। দার্শিলের দাবি, তাদের তৈরি এই বাঁশের ব্যাট কাঠের চেয়ে বেশি অনমনীয়, কঠিন ও শক্তিশালী। এই ব্যাটের সুইট স্পট অনেক বেশি, প্রায় ব্যাটের তলা পর্যন্ত তা বিস্তৃত। তাই ব্যাটসম্যানরা ইয়র্কার বলেও ভালো শট খেলতে পারবেন।

কিন্তু এই অধিক ক্ষমতার কারণেই বাঁশের ব্যাটকে অনুমদোন দিচ্ছে না এমসিসি। ক্রিকেটের আইনকানুন প্রণয়নকারী এই স্ংস্থা বিবৃতিতে বলেছে, ব্যাট-বলের লড়াইয়ে যাতে ভারসাম্য থাকে সে কারণে তারা বিভিন্ন সময়ে ব্যাটের ক্ষমতা কমিয়েছেন। এ কারণেই ব্যাটের উপকরণের ক্ষেত্রে যেন সতর্ক থাকা হয় ও ব্যাটের আকার যেন সীমিত থাকে। তবে ব্যাট নিয়ে পরীক্ষা নিরীক্ষাকে এমসিসি স্বাগত জানিয়েছে। আইন বিষয়ক উপ-কমিটির পরবর্তী সভায় বাঁশের ব্যাট নিয়ে আলোচনার কথাও বলা হয়েছে।



সাতদিনের সেরা