kalerkantho

শনিবার । ২৫ বৈশাখ ১৪২৮। ৮ মে ২০২১। ২৫ রমজান ১৪৪২

পুরো সিরিজে কোনো রান করেননি, উইকেট পাননি, এমনকি ক্যাচও ধরেননি রাহি

অনলাইন ডেস্ক   

৫ মে, ২০২১ ১২:০৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পুরো সিরিজে কোনো রান করেননি, উইকেট পাননি, এমনকি ক্যাচও ধরেননি রাহি

আবু জায়েদ রাহি। ফাইল ছবি

সদ্য সমাপ্ত বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা টেস্ট সিরিজে ১৬৩ রানের ইনিংস খেলেছেন নাজমুল হোসেন শান্ত। শতরানের ইনিংস খেলেছেন বাংলাদেশ অধিনায়ক মুমিনুল হকও। তবু এই দুই ক্রিকেটারকে নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে ট্রলের বন্যা বয়ে যাচ্ছে। তবে এদিক থেকে নিজেকে বেশ ভাগ্যবান ভাবতে পারেন আবু জায়েদ রাহি। পুরো সিরিজে কোনো অবদান না রেখেও ট্রলের শিকার হতে হচ্ছে না তাকে।

শ্রীলঙ্কা সফরে বোলিং, ব্যাটিং, ফিল্ডিং- তিন বিভাগেই রাহির অবদান শূন্য। পুরো সিরিজে একটিও উইকেট পাননি এই পেসার। ব্যাট হাতেও কোনো রানের দেখা পাননি। এমনকি ফিল্ডার হিসেবেও নিতে পারেননি কোনো ক্যাচ।

প্রথম টেস্টে শ্রীলঙ্কা ব্যাট করেছে একবার। সেই ইনিংসে ১৯ ওভারে ৭৬ রান দিয়ে রাহি ছিলেন উইকেট-শূন্য। সেই ইনিংসে ধরতে পারেননি কোনো ক্যাচও। প্রথম ইনিংসে তার ব্যাটিং সিরিয়াল আসার আগেই ইনিংস ঘোষণা করেন মুমিনুল হক।

দ্বিতীয় টেস্টে আগে ব্যাটিং করে ৭ উইকেটে ৪৯৩ রান তোলে ইনিংস ঘোষণা করে শ্রীলঙ্কা। সেই ইনিংসে ২২ ওভারে ৬৯ রান দিয়ে কোনো উইকেট পাননি রাহি। লঙ্কান ‍দ্বিতীয় ইনিংসে বোলিংই করেননি রাহি। তবে ব্যাটিং করেছেন বাংলাদেশের দুই ইনিংসেই। প্রথম ইনিংসে শূন্য রানে অপরাজিত থাকা রাহি দ্বিতীয় ইনিংসে শূন্য রানে জয়াবিক্রমার বলে এলবিডাব্লিউ হয়ে ফেরেন সাজঘরে। এই টেস্টেও রাহির হাতে ধরা পড়েনি কোনো ক্যাচ। তিন বিভাগে এমন ব্যর্থতার ইতিহাস ক্রিকেটে বিরল।



সাতদিনের সেরা