kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৭ ফাল্গুন ১৪২৭। ২ মার্চ ২০২১। ১৭ রজব ১৪৪২

কেনিনের অশ্রুসিক্ত বিদায়, তৃতীয় রাউন্ডে বার্টি

অনলাইন ডেস্ক   

১১ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১৮:০৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কেনিনের অশ্রুসিক্ত বিদায়, তৃতীয় রাউন্ডে বার্টি

ছবি : এএফপি

অশ্রুসিক্ত নয়নে অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের দ্বিতীয় রাউন্ড থেকে বিদায় নিয়েছেন নারী বিভাগের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন সোফিয়া কেনিন। ২২ বছর বয়সী এই মার্কিন তারকা ইন-ফর্ম এস্তোনিয়ান কাইয়া কানেপির কাছে ৬-৩, ৬-২ গেমের সরাসরি সেটে দ্বিতীয় রাউন্ডে পরাজিত হয়েছেন। মার্গারেট কোর্ট এরিনাতে ম্যাচটি মাত্র ৬৪ মিনিট স্থায়ীত্ব পেয়েছিল। গত আসরের ফাইনালে গারবিন মুগুরুজাকে হারিয়ে শিরোপা জয়ের মাধ্যমে ক্যারিয়ারের প্রথম গ্র্যান্ড স্ল্যাম শিরোপা জয়ের কৃতিত্ব দেখিয়েছিলেন কেনিন।

পুরো ম্যাচে ১০টি এস মারা কানেপি বলেছেন, 'সত্যিকার অর্থেই আমি দারুন সার্ভিস করেছি এবং শুরু থেকেই আমার আক্রমনাত্মক খেলার পরিকল্পনা ছিল।'

মস্কোতে জন্মগ্রহনকারী কেনিন ম্যাচ শেষে স্বীকার করেছেন বাম কুঁচকির ইনজুরি তাকে ম্যাচের মাঝে সমস্যায় ফেলেছিল। অস্ট্রেলিয়ান পৌঁছার পর ১৪ দিনের বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টাইনের সময় তিনি এই ইনজুরিতে আক্রান্ত হন। প্রথম রাউন্ডে অস্ট্রেলিয়ান ম্যাডিসন ইনগিলসের বিপক্ষেও তিনি এই সমস্যার মুখোমুখি হয়েছিলেন। কাল বিদায়ের পর বেশ আবেগী হয়ে পড়েছিলেন কেনিন। পুরো ম্যাচে কানেপির শক্তিশালী সার্ভিসের বিপরীতে কেনিন ২২টি আনফোর্সড এরর করেছেন।

প্রস্তুতিমূলক গিপসল্যান্ড ট্রফিতে রানার্স-আপ হওয়া কানেপি দারুন ফর্মে রয়েছেন। প্রথম রাউন্ডেও তিনি লাটভিয়ার আনাসতাজিয়া সেভাস্তোভার বিপক্ষে সরাসরি সেটের জয় তুলে নিয়েছিলেন। পরের রাউন্ডে ৩৫ বছর বয়সী কানেপির প্রতিপক্ষ ২৮তম বাছাই ক্রোয়েট খেলোয়াড় ডোনা ভেকিচ। রড লেভার এরিনাতে অল অস্ট্রেলিয়ান লড়াইয়ে জয়ী হয়ে তৃতীয় রাউন্ড নিশ্চিত করেছেন বিশ্বের এক নম্বর তারকা অ্যাশলে বার্টি।  ২০১৯ ফ্রেঞ্চ ওপেন বিজয়ী বার্টি প্রথম রাউন্ডে মন্টেনেগ্রোর ডানকা কোভিনিচকে ৬-০, ৬-০ গেমে উড়িয়ে দিয়েছিলেন।

২৪ বছর বয়সী এই অস্ট্রেলিয়ান তরুণী ১ ঘন্টা ৩২ মিনিটের লড়াইয়ে স্বদেশী ডারি গাভ্রিলোভাকে ৬-১, ৭-৬ (৯/৭) গেমে পরাজিত করে তৃতীয় রাউন্ডে উঠেছেন। ম্যাচে বাম থাইয়ে পুরু ব্যান্ডেজ করে খেলতে নেমেছিলেন বার্টি। কিন্তু বিশ্বের ৩৮৭তম খেলোয়াড় গাভ্রিলোভা বার্টিকে কোন সমস্যায় ফেলতে পারেননি। ম্যাচ শেষে বার্টি বলেছেন, 'এই ধরনের ইনজুরি কোন সমস্যা নয়। তারপরেও সবসময়ই সতর্ক থাকতে হয়। আরেকজন অসির বিপক্ষে যখন কোর্টে নামি তখন র‌্যাঙ্কিং মাথায় থাকে না। যে কারণে এই ম্যাচগুলো সবসময়ই কিছুটা কঠিন হয়ে পড়ে।'

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা