kalerkantho

শুক্রবার । ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৭। ২৭ নভেম্বর ২০২০। ১১ রবিউস সানি ১৪৪২

এক দশক পর বায়ার্নের থেকে পয়েন্ট ছিনিয়ে নিল ব্রেমেন

অনলাইন ডেস্ক   

২২ নভেম্বর, ২০২০ ২১:৫৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



এক দশক পর বায়ার্নের থেকে পয়েন্ট ছিনিয়ে নিল ব্রেমেন

শনিবার ওয়ার্ডার ব্রেমেনর সাথে ঘরের মাঠে ১-১ গোলে ড্র করেও বুন্দেসলিগায় শীর্ষস্থানটি অক্ষুন্ন রেখেছে ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়ন বায়ার্ন মিউনিখ। ম্যানুয়েল নয়্যারের দুর্দান্ত কয়েকটি সেভে বায়ার্ন পরাজয়ের হাত থেকে কোনরকমে রক্ষা পেয়েছে। জার্মান গোলরক্ষক নয়্যার যুক্তরাষ্ট্রের ফরোয়ার্ড জোশ সার্জেন্টকে দুইবার হতাশ করেছেন। এই ড্রয়ে প্রায় এক দশক পরে বায়ার্নের কাছ থেকে পয়েন্ট ছিনিয়ে নিতে সক্ষম হলো ব্রেমেন।

গত সপ্তাহে স্পেনের কাছে নেশন্স লিগের ৬ গোল হজম করার পর ৩৪ বছর বয়সী নয়্যারের জন্য এই পারমেন্সটা জরুরী ছিল। প্রথমার্ধে সার্জেন্ট ও লুডউইগ অগাস্টিনসনের দুটি শট দুর্দান্ত দক্ষতায় রুখে দিয়ে ব্রেমেনকে হতাশ করে তুলেছিলেন নয়্যার। ম্যাচের শেষ মুহূর্তে আবারো সার্জেন্টের একটি সহজ সুযোগ আটকে দেন নয়্যার। বায়ার্ন কোচ হ্যান্সি ফ্লিক ম্যাচ শেষে স্বীকার করতে বাধ্য হয়েছেন, তার দল ভালোই প্রতিরোধ গড়ে তুলেছিল।

বায়ার্নের কোচ হিসেবে ৫০তম ম্যাচে এসে কোন দল সত্যিকার অর্থেই পুরো ম্যাচে এগিয়ে ছিল বলে ফ্লিক স্বীকার করেছেন। বিরতির ঠিক আগে ব্রেমেনর এগিয়ে যাওয়াটা সময়ের ব্যপার ছিল। আর তার থেকে দলকে হতাশ করেননি মিডফিল্ডার ম্যাক্সিমিলিয়ান এগেস্টেইন। ৪৫ মিনিটে দারুন একটি সংঘবদ্ধ আক্রমণ থেকে এগেস্টেইন বল জালে জড়ান। বায়ার্ন ফরোয়ার্ড থমাস মুলার বলেছেন, 'আমরা অত্যন্ত বাজে একটি গোল হজম করেছি। আর এটাই ব্রেমেনের পরিকল্পনা ছিল। তবে তারা দারুনভাবে নিজেদের প্রতিরোধ করেছে।'

আলিয়াঁজ এরিনাতে ৬২ মিনিটে লিও গোটশের ক্রস থেকে কিংসলে কোম্যান বায়ার্নের হয়ে সমতা ফেরান। ম্যাচ শেষের পাঁচ মিনিট আগে বায়ার্ন ফরোয়ার্ড এরিক ম্যাক্সিম চুপো-মোটিং পোস্টের উপর দিয়ে বল পাঠিয়ে স্বাগতিকদের শেষ হাসি হাসতে দেননি। যদি নয়্যারের কল্যানে অন্তত এক পয়েন্ট নিয়ে মাঠ ছাড়তে পেরেছে বেভারিয়ান্সরা। এই ড্রয়ে আট ম্যাচ পর বায়ার লেভারকুজেনের চেয়ে এক পয়েন্ট এগিয়ে শীর্ষস্থান ধরে রাখলো বায়ার্ন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা