kalerkantho

শনিবার । ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৭। ২৮ নভেম্বর ২০২০। ১২ রবিউস সানি ১৪৪২

আমি মোটেও অবাক হচ্ছি না : গাঙ্গুলী

অনলাইন ডেস্ক   

২২ অক্টোবর, ২০২০ ১৫:১৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



আমি মোটেও অবাক হচ্ছি না : গাঙ্গুলী

করোনার কারণে বাধ্য হয়েই ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (আইপিএল) টি-টুয়েন্টি ক্রিকেটের ত্রয়োদশ আসরটি সংযুক্ত আরব আমিরাতে আয়োজন করছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড (বিসিসিআই)। মরুর দেশে আইপিএল আয়োজন নিয়ে শুরুতে চিন্তায় ছিলেন বিসিসিআই সভাপতি সৌরভ গাঙ্গুলী। কিন্তু টুর্নামেন্ট শুরুর পর থেকে টিভি সেট, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আইপিএলের প্রতি ক্রিকেটপ্রেমীদের উৎসাহ-উদ্দীপনা ছড়িয়ে পড়েছে সারা বিশ্ব। চিন্তায় থাকলেও ক্রিকেটপ্রেমীদের আগ্রহে মোটের বিস্মিত নন গাঙ্গুলী।

তিনি বলেন, 'টিভি রেটিং আকাশ ছুঁয়েছে। কিন্তু এই পরিস্থিতিতে টুর্নামেন্ট সফল হবে কিনা তা নিয়ে শুরুতে আমরা সকলেই নিশ্চিত ছিলাম। দর্শক ছাড়া দেশের বাইরে টুর্নামেন্ট। এমনকি সেখানেও দর্শক থাকবে না। আমরা কেউই বুঝতে পারছিলাম না, আসলে কি হবে এই আসরের। কিন্তু খেলা শুরুর পর আমাদের সব দুঃশ্চিন্তা কেটে গেল। টিভি রেটিংয়ের দিক থেকে আইপিএল দারুণ সফল। অসংখ্য মানুষ খেলা দেখছেন। অসংখ্য মানুষ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সাড়া দিচ্ছেন। সকলেই এই আসরটি উপভোগ করে।'

আইপিএলের উদ্বোধনী ম্যাচই দেখছিলো ২০ কোটি মানুষ। টুর্নামেন্ট গড়ানোর পর থেকে সেই সংখ্যা আরও বেড়েছে। টুর্নামেন্টের এমন সাফল্যে বিস্মিত নন গাঙ্গুলী। তিনি বলেন, 'দেশের বাইরে হলেও আইপিএল সাফল্যে আমি অবাক হচ্ছি না। বিশ্বের অন্যতম সেরা টুর্নামেন্ট আইপিএল। সেরা টুর্নামেন্ট মানুষ দেখতে চাইবে, এটাই স্বাভাবিক। তবে আমরা সকলেই চিন্তায় ছিলাম সেটা অস্বীকার করা যাবে না।'

মাঠের খেলাও জমে উঠেছে। প্রতিটি ম্যাচেই উত্তেজনা বাড়ছে। বেশ কয়েকটি ম্যাচ সুপার ওভারে গড়িয়েছে। ডাবল-সুপার ওভারও হয়েছে। টান-টান উত্তেজনা দেখা যাচ্ছে প্রতিটি ম্যাচেই। এটিকেও সাফল্যের অংশ হিসেবে মনে করছেন গাঙ্গুলী। তিনি বলেন, ‘এ বারের টুর্নামেন্টে অনেকগুলো সুপার ওভার হয়েছে। মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স-কিংস ইলেভেন ম্যাচ নিষ্পত্তি হয়েছে ডাবল সুপার ওভারে। ব্যাটসম্যান-বোলাররাও দারুণ পারফরমেন্স দেখাচ্ছে। এবারের আইপিএলে সব কিছুই দেখা যাচ্ছে। মাঠের উত্তেজনাও সাফল্যের অন্যতম কারন।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা