kalerkantho

শনিবার । ৮ কার্তিক ১৪২৭। ২৪ অক্টোবর ২০২০। ৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

মেসির আরও একজন বন্ধু কমে গেল

অনলাইন ডেস্ক   

২৪ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ১৬:৫১ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মেসির আরও একজন বন্ধু কমে গেল

ভাঙন শুরু হয়েছিল ২০১৭ সালে, এবার পূর্ণ হলো ষোলকলা। বার্সেলোনার সেই দুধর্ষ 'এমএসএন' ত্রয়ী এখন অতীত। নেইমারের পর এবার চলে যাচ্ছেন লুইস সুয়ারেসও। বার্সেলোনা ফরোয়ার্ডের সঙ্গে চুক্তির ঘোষণা দিয়েছে আতলেটিকো মাদ্রিদ। উরুগুয়ের এই স্ট্রাইকারের সঙ্গে জুভেন্তাসের আলোচনার গুঞ্জন থাকলেও শেষ পর্যন্ত লা লিগায় থেকে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন সুয়ারেস।

বুধবার বার্সেলোনার হয়ে শেষ অনুশীলন করে মাঠে থেকে অশ্রুসজল নয়নে বিদায় নিয়েছেন সুয়ারেস। বার্সেলোনার পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে ছয় মিলিয়ন ইউরোতে আতলেটিকোর সঙ্গে তাদের চুক্তি হয়েছে। ২০১৪ সালে লিভারপুল থেকে বার্সেলোনায় যোগ দেওয়ার পর কাতালান জায়ান্টদের হয়ে সুয়ারেস ২০১৫ সালের চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিসহ চারটি লা লিগা শিরোপা জিতেছেন। বার্সার হয়ে তৃতীয় সর্বোচ্চ গোলদাতা হিসেবে সুয়ারেস ক্লাব ছাড়লেন। ছয় বছরে তিনি করেছেন ১৯৮টি গোল। ৬৩৪ গোল করে এই তালিকার শীর্ষ রয়েছেন লিওনেল মেসি। ২৩২ গোল নিয়ে সিজার রডরিগুয়েজ রয়েছেন দ্বিতীয় স্থানে।

জুভেন্তাসের সঙ্গে আলোচনা ব্যর্থ হওয়ায় সেই সুযোগটা লুফে নিয়েছে বার্সার লা লিগা প্রতিদ্বন্দ্বী আতলেটিকো। এর আগে গত সপ্তাহে জুভেন্তাস কোচ আন্দ্রে পিরলো সুয়ারেসের সঙ্গে চুক্তির ব্যর্থতার ইঙ্গিত দিয়েছিলেন। ছয় বছর বার্সেলোনায় কাটানোর পর দলের নতুন কোচ রোনাল্ড কোম্যান জানিয়ে দিয়েছিলেন, তার ভবিষ্যত পরিকল্পনায় সুয়ারেসের কোনো জায়গা নেই। আর এতেই তার প্রতি আগ্রহী হয়ে উঠে জুভেন্তাস। ইতালিয়ান ভাষা শিক্ষা নিয়ে সুয়ারেস কিছুটা সমস্যায় পড়েন। পরবর্তীতে ভাষা পরীক্ষা দিতে গিয়ে তার বিরুদ্ধে জালিয়াতির চেষ্টার অভিযোগ ওঠে।

এই ৩৩ বছর বয়সী স্ট্রাইকার আর ঝামেলা না বাড়িয়ে আতলেটিকোকেই বেছে নেন। কোম্যান বার্সায় এসে সুয়ারেস ছাড়াও আরতুরো ভিদাল ও ইভান রাকিটিচের মত অভিজ্ঞ খেলোয়াড়দেরও বাদ দেওয়ার ঘোষণা দেন। এদিকে ফ্রেঞ্চ ডিফেন্ডার স্যামুয়েল উমতিতিও বার্সা ছাড়ার দ্বারপ্রান্তে রয়েছেন। এর আগে সমঝোতার ভিত্তিতে সুয়ারেসের সঙ্গে বর্তমান চুক্তি বাতিল করে বার্সা। চুক্তিতে থাকা এক বছরের বেতনসহ অন্যান্য ভাতার দাবিও ছাড়তে হয় সুয়ারেসকে। আগের মৌসুমে ৩৬ ম্যাচে সুয়ারেস করেছিলেন ২১ গোল। ২০১৫-১৫ মৌসুমে বার্সার জার্সি গায়ে ৫৯ গোল করে ইউরোপীয় লিগের সর্বোচ্চ গোলদাতা হিসেবে পেয়েছিলেন গোল্ডেন বুট।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা