kalerkantho

শুক্রবার । ২৩ শ্রাবণ ১৪২৭। ৭ আগস্ট  ২০২০। ১৬ জিলহজ ১৪৪১

'লাজুক' ইমরান হোলি খেলতে ঘর থেকে বের হননি

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৭ জুলাই, ২০২০ ১৬:২৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



'লাজুক' ইমরান হোলি খেলতে ঘর থেকে বের হননি

এখন হয়তো রাজনৈতিক কারণে দুই দেশের সিরিজ হয় না। কিন্তু এমন একসময় ছিল, যখন নিয়মিত সিরিজ খেলত ভারত-পাকিস্তান। দুই দলের ক্রিকেটাররা মাঠের বাইরে একসঙ্গে বিভিন্ন উদযাপন করতেন। এবার হোলি উপলক্ষে ভারত ও পাকিস্তানের ক্রিকেটারদের মধ্যে সম্প্রীতির কাহিনি শোনালেন সাবেক ভারতীয় উইকেটকিপার কিরণ মোরে।

১৯৮৭ সালে ৬ ম্যাচের ওয়ানডে এবং ৫ ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলতে ভারত সফরে গিয়েছিল ইমরান খানের নেতৃত্বাধীন পাকিস্তান ক্রিকেট দল। ঘরের মাঠে সেই স্মরণীয় সিরিজের সাক্ষী ছিলেন মোরে। টেস্ট সিরিজে প্রথম চারটি ম্যাচ উত্তেজনাপূর্ণ হলেও অমীমাংসিতভাবে শেষ হয়েছিল। বেঙ্গালুরুতে ছিল সিরিজের শেষ টেস্ট। সেই ম্যাচ চলার মাঝেই ছিল হোলি। এই সুযোগ হোলি উৎসবে মেতে উঠেছিলেন ভারত-পাকিস্তান দুই দলের ক্রিকেটাররা।

সম্প্রতি ক্রিকেট সংক্রান্ত এক আলোচনায় কিরণ মোরে বলেন, ‍'পুরো সিরিজে দুই দলের ক্রিকেট লড়াই বেশ জমে গিয়েছিল। আমরা কোনো সময় একে অপরকে ছেড়ে কথা বলিনি। সেখানে লড়াইটা ছিল পুরোপুরি নিজেদের শ্রেষ্ঠত্ব প্রমাণ করার। কিন্তু হোলির দিন আমরা দুই দলের ক্রিকেটারেরা দারুণ মজা করেছিলাম।'

তিনি বলেন, 'আমরা ছিলাম বেঙ্গালুরুর একটা হোটেলে। এখনও স্পষ্ট মনে আছে, এমন ভাবে হোলি উৎসব পালন করেছিলাম আমরা দুই দলের ক্রিকেটারেরা যে, হোটেলের সুইমিংপুল, ঘর, দেয়াল সব লাল হয়ে গিয়েছিল। দারুণ সময় কেটেছিল। এত দিন আগের ঘটনা, তবু সেটা এখনো ভুলতে পারিনি। আমরা ও পাকিস্তানের ক্রিকেটারেরা মিলিতভাবে ইমরানকে ঘর থেকে বার করার বহু চেষ্টা করেছিলাম। ও খুব লাজুক প্রকৃতির ছিল। ঘরের বাইরেই আসেনি।'

ইমরান খানকে বের করা নিয়ে কিরণ মোরে আরো বলেন, 'ইমরানকে ঘর থেকে বের করে রং লাগানোর জন্য জাভেদও (মিয়াঁদাদ) খুব তৎপর ছিল। কিন্তু তাতেও আমরা সফল হতে পারিনি। সেদিন হোলি উদযাপনের পর দুই দলের ক্রিকেটারেরা মিলে একসঙ্গে মধ্যাহ্নভোজ করেছিলাম। কেউ কেউ গানের তালে তালে ভাংড়া নেচেছিল। পরের দিন কিন্তু আমরা মাঠে টেস্ট খেলতে নেমেছিলাম। তখন সবাই একে অপরের প্রতিপক্ষ হয়ে গিয়েছিলাম। কেউ কাউকে মাঠের লড়াইয়ে ছেড়ে কথা বলেনি।'

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা