kalerkantho

মঙ্গলবার । ৩০ আষাঢ় ১৪২৭। ১৪ জুলাই ২০২০। ২২ জিলকদ ১৪৪১

পন্টিং আমাকে সন্তানের মতো আগলে রেখেছেন : পান্ডিয়া

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৩ জুন, ২০২০ ১২:৫২ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পন্টিং আমাকে সন্তানের মতো আগলে রেখেছেন : পান্ডিয়া

বর্তমান ভারতীয় ক্রিকেট দলের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ সদস্য পেস বোলিং অলরাউন্ডার হার্দিক পান্ডিয়া। ২০১৫ সালের আইপিএলের আগে ভারতের ক্রিকেটে তাঁর কোনো নাম-নিশানাও ছিল না। কিন্তু একটি ঘরোয়া টুর্নামেন্টে ঝড়ো ৮২ রানের ইনিংস খেলার সুবাদে মুম্বাইয়ের নজর পড়ে তাঁর ওপর। সেই সুবাদে মুম্বাই ইন্ডিয়ানসের সদস্য বনে যান তিনি। ১০ লাখ রুপি দিয়ে তাঁকে কিনে নেয় ফ্র্যাঞ্চাইজিটি। আর আইপিএলে নিজের প্রথম মৌসুমেই রিকি পন্টিংয়ের মতো কিংবদন্তি খেলোয়াড়ের সান্নিধ্য পান ২৬ বছর বয়সী এ অলরাউন্ডার।

এ ব্যাপারে ক্রিকবাজের সঙ্গে এক সাক্ষাৎকারে হার্দিক পান্ডিয়া বলেছেন, ‘রিকি পন্টিং এমন একজন ছিলেন, যিনি আমার সেরা যত্নটাই নিয়েছেন। তিনি আমাকে নিজের সন্তানের মতো আগলে রেখেছেন। আমার কাছে বাবার মতোই একজন ছিলেন তিনি। অনেক কিছু শিখেছি তার কাছ থেকে। ২০১৫ সালে নতুন ছেলে হিসেবে আমি পেছন দিকে বসতাম, পন্টিংও আমার সঙ্গে বসে অনেক বিষয়ে কথা বলতেন। এগুলো থেকে আমি অনেক শিখেছি।’

এ সময় মুম্বাই ইন্ডিয়ানসের সতীর্থ খেলোয়াড় কাইরন পোলার্ডের সঙ্গে ভালো সম্পর্কের কথাও উল্লেখ করেন পান্ডিয়া। তিনি বলেন, ‘পোলার্ডের সঙ্গে আমার দারুণ সম্পর্ক। আমাদের পরিবার একে-অন্যের সঙ্গে যোগাযোগ আছে। ওয়েস্ট ইন্ডিজের সঙ্গে সময়ের পার্থক্য থাকলেও, আমরা নিয়মিতই কথা বলি। আমি তাকে নিজের সিনিয়র এবং রোল মডেল হিসেবে বিবেচনা করি।’

তবে কাউকে নির্দিষ্ট রোল মডেল ভাবেন না পান্ডিয়া। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘আমার কখনও কোনো রোল মডেল ছিল না। আমি সবসময় সেরাদের কাছ থেকে শেখার চেষ্টা করি। যা নিজের খেলায় নেওয়ার চেষ্টা থাকে আমার। যেমন মাহি ভাই (মহেন্দ্র সিং ধোনি) থেকে শান্ত থাকা, বিরাটের কাছ থেকে রানের ক্ষুধা... ২০১৫ সালে আইপিএলে সুযোগ পাওয়ার পর থেকেই আমি সবার কাছ থেকে শেখার চেষ্টা করছি।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা