kalerkantho

মঙ্গলবার । ৩০ আষাঢ় ১৪২৭। ১৪ জুলাই ২০২০। ২২ জিলকদ ১৪৪১

নিজের নাক কেটে পরের যাত্রা ভঙ্গ করে পাকিস্তানি ক্রিকেটাররা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৫ মে, ২০২০ ১৪:৩৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নিজের নাক কেটে পরের যাত্রা ভঙ্গ করে পাকিস্তানি ক্রিকেটাররা

বিশ্বের মাঝে পাকিস্তান যেমন উদ্ভট এক দেশ, তেমনটি তাদের দেশের ক্রিকেটাররাও উদ্ভট। ২০১৯ সালে ইউনিস খানের নেতৃত্বে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জিতেছিল পাকিস্তান। এর ঠিক ৬ মাস পর তাকে নেতৃত্ব থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়। তাহলে নেতৃত্ব থেকে তাকে সরানো হল কেন? তিনি তো সফল অধিনায়ক? আসলে এর পেছনে আছে পাকিস্তান দলের বাজে কিছু রাজনীতি। যা অনেকটা নিজের নাক কেটে পরের যাত্রা ভঙ্গ করার মতো।

নেতৃত্ব হারানোর পেছনের কারণ নিয়ে সম্প্রতি একটি সংবাদ মাধ্যমকে ইউনিস বলেছেন, 'জীবনে আপনাকে এমন অনেক পরিস্থিতির সম্মুখীন হতে হবে, যখন সত্যি কথা বললে মানুষ আপনাকে পাগল ভাববে। দেশের হয়ে খেলার সময় দলের কয়েকজন ক্রিকেটার নিজের সেরাটা দিচ্ছে না- এই কথাটি বলাই আমার দোষ ছিল।'

টেস্ট ক্রিকেটে পাকিস্তানের হয়ে সর্বোচ্চ রানের মালিক ইউনিস। অধিনায়ক হিসেবেও তিনি সফল। তারপরেও এই তারকা ক্রিকেটার পাকিস্তানে খুব একটা জনপ্রিয় নন। ইউনিস বলেছেন, 'একটা সময় সেই ক্রিকেটাররা পরে নিজেদের ভুলটা বুঝতে পেরেছিল। তারপর আমরা একসঙ্গে খেলেছি। আমি জানতাম আমি ভুল কিছু বলিনি। সব সময়ে সত্যি কথা বলতে হবে, এটা আমি আমার বাবার কাছ থেকে শিখেছিলাম।'

কয়েকদিন আগে ঠিক একইরকম অভিযোগ এনেছিলেন সাবেক পাকিস্তানি পেসার রানা নাভেদ। তিনি দুটি ম্যাচের কথাও সুস্পষ্টভাবে উল্লেখ করেছিলেন। স্থানীয় টিভি চ্যানেলে রানা নাভেদ বলেছিলেন, '২০০৯ সালে সংযুক্ত আরব আমিরাতে নিউজিল্যান্ডের কাছে দুটি ওয়ানডে আমরা হেরেছিলাম। কারণ বেশ কয়েক জন ক্রিকেটার ইচ্ছা করে ভাল খেলেনি।'

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা