kalerkantho

বুধবার । ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ । ২৭  মে ২০২০। ৩ শাওয়াল ১৪৪১

স্টুয়ার্ট ব্রডের ভাগ্যে জুটল মেয়েদের বাথরুম

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২১ মে, ২০২০ ২১:৫৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



স্টুয়ার্ট ব্রডের ভাগ্যে জুটল মেয়েদের বাথরুম

অসম্ভব সুদর্শন স্টুয়ার্ট ব্রডের চেহারাটায় নাকি অনেকটা মেয়েলী ভাব আছে? যখন প্রথম ক্রিকেটে আসেন, তাকে ড্রেসিংরুমে দেখে 'সুন্দরী মেয়ে' ভেবে হা করে তাকিয়েছিলেন সতীর্থ পেসার জেমস অ্যান্ডারসন। নিজের ভুল ভাবা এবং ভুল ভাঙার সেই হাস্যকর গল্প অ্যান্ডারসন পরে ফাঁস করেছিলেন। এবার এই মেয়েলী চেহারার জন্যই কি ব্রডের সঙ্গে এমন 'মজা' করল ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি)? ব্রডকে একেবারে পাঠিয়ে দিল মেয়েদের বাথরুমে! তাহলে এবার আসল ঘটনা জেনে আসা যাক।

করোনা মহামারীর মধ্যেই জুলাইয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সিরিজ সামনে রেখে অনুশীলন শুরু করেছে ইংল্যান্ড দল। সেই অনুশীলনে আছে হাজার রকমের বিধিনিষেধ। যেমন, কারও গায়ের তাপমাত্রা ৩৭.৭ ডিগ্রি সেলসিয়াসের বেশি হলে তাকে বাসাতেই থাকতে হবে। ব্রড অনুশীলনে আসার আগে সোশ্যাল সাইটে তার দেহের ৩৬.৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রার ছবি পোস্ট করে দেন। অনুশীলন করে সোজা যেতে হবে নিজ নিজ বাসায়। কোনো ড্রেসিংরুম ব্যবস্থা নেই। তবে আছে বাথরুমের ব্যবস্থা।

এই বাথরুম নিয়েই ঘটনাটা ঘটেছে। সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে প্রতিটি ক্রিকেটারের জন্য আলাদা বাথরুমের ব্যবস্থা করেছে ইসিবি। যে কারণে মেয়েদের বাথরুমটাও ছেলেদের দিতে হয়েছে। আর সেটা ব্রডের ভাগ্যেই জুটেছে। সোশ্যাল সাইটে বাথরুমে সাঁটানো নিজের নামের ছবি পোস্ট করেছেন ব্রড। তার পোস্ট দেখে বেশ মজা পেয়েছেন ভক্তরা। যদিও ব্রডকে 'মেয়ে' ভাবা অ্যান্ডারসন কিন্তু এই ছবি নিয়ে এখনও কোনো কমেন্ট করেননি।

ইংলিশদের অনুশীলনে আরও কিছু বিধিনিষেধের কথা বলা যেতে পারে। অনুশীলনের পোশাক পরে সোজা মাঠে যেতে হবে। অনুশীলন শেষে সোজা বাসায়। নেটে বল করার পর তা নিজেকেই কুড়িয়ে আনতে হবে। অনুশীলনের জন্য ৬টি বল নিজেকে আনতে হবে এবং অনুশীলন শেষে সেগুলো নিয়ে যেতে হবে। বলে লালা মাখানো যাবে না। অনুশীলনে আসা ক্রিকেটারদের কিছুক্ষণ পর পর হাত ধুতে হবে। মোবাইলফোনসহ সঙ্গে থাকা জিনিসপত্র সবকিছু স্যানিটাইজার দিয়ে পরিস্কার করে তারপর মাঠে ঢুকতে হবে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা