kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৭ চৈত্র ১৪২৬। ৩১ মার্চ ২০২০। ৫ শাবান ১৪৪১

করোনা নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর উল্টপাল্টা বক্তব্যে চটেছেন শেন ওয়ার্ন

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৫ মার্চ, ২০২০ ১৯:৫৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



করোনা নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর উল্টপাল্টা বক্তব্যে চটেছেন শেন ওয়ার্ন

সারাবিশ্বের মতো অস্ট্রেলিয়াতেও ছড়িয়ে পড়েছে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস। দেশটি এখনো লকডাউনে যায়নি। এ নিয়ে সাধারণ মানুষসহ তারকাদের মাঝে ক্ষোভ বাড়ছে। এই পরিস্থিতিতে উল্টাপাল্টা কথা বলে যাচ্ছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন। এতে বেজায় চটে গেছেন সাবেক অজি স্পিন কিংবদন্তি শেন ওয়ার্ন। তিনি প্রকাশ্যেই সোশ্যাল সাইটে বিবৃতি দিয়ে তাদের প্রধানমন্ত্রীকে আবোল তাবোল কথা থামাতে বলেছেন।

গতকাল অস্ট্রেলিয়ার সব পানশালা ও থিয়েটার বন্ধ হয়ে গেছে। করোনাভাইরাস সংক্রমণরোধে কাল সন্ধ্যায় এক বিবৃতিতে স্কট মরিসন বিউটি পার্লার থেকে চুল কাটার সেলুনগুলো বন্ধ রাখার নির্দেশ দেন। পাশাপাশি বিয়ে কিংবা শেষকৃত্য অনুষ্ঠানে ৫ থেকে ১০জন বেশি মানুষকে যেতে নিষেধ করেন। কিন্তু বাচ্চাদের স্কুলে যাওয়া বন্ধ করেননি তিনি! বরং বলেছেন, 'বাচ্চাদের নিরাপদে স্কুলে পাঠাতে পারেন। মরিসন ব্যাখ্যা করে বলেন, ‘২০২০ সালটা কঠিন হবে। বাচ্চাদের লেখাপড়ায় বিঘ্ন ঘটুক তা চাই না। এটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। বাচ্চারা যেন লেখাপড়া করতে পারে তা নিশ্চিত করতে হবে। ভাইরাসের কাছে হারা চলবে না।'

এতেই ক্ষেপেছেন ওয়ার্ন। তিনি কোনো রাখঢাক না করে বলেছেন, 'প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য ঠিক বুঝতে পারছি না। আর সবাই শপিং সেন্টারে গিয়ে কাপড়-চোপড় কিনতে পারবে? এটা কেমন হলো! প্রধানমন্ত্রী তো সবাইকে চমকে দিলেন! প্রধানমন্ত্রী হয়ে সবাইকে খুশি রাখা সম্ভব না। তবে অবশ্যই অস্ট্রেলিয়াকে লকডাউন করা উচিত। আসুন অন্য দেশগুলোর ভুল থেকে শিক্ষা নেই। স্বাস্থ্য সবার জন্যই সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ।'

অস্ট্রেলিয়ার জাতীয় ওয়ানডে দলের অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ টুইটারে লিখেছেন, 'প্রধানমন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন শোনার আগে যতটুকু বিভ্রান্ত ছিলাম শোনার পর তার চেয়ে বেশি বিভ্রান্ত হয়েছি।'

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা