kalerkantho

বুধবার । ১৬ অক্টোবর ২০১৯। ১ কাতির্ক ১৪২৬। ১৬ সফর ১৪৪১       

সাইফউদ্দিনের মন্তব্যে বিরক্ত ডমিঙ্গো যা বললেন...

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ১৯:৩৫ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



সাইফউদ্দিনের মন্তব্যে বিরক্ত ডমিঙ্গো যা বললেন...

টানা চার ম্যাচ পরাজিত হওয়া আফগানিস্তানের বিপক্ষে জয়ের ধারায় ফিরে কিছুটা নির্ভার রয়েছে টাইগাররা। তবে ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজের ফাইনালে আগামীকাল আফগানিস্তানের বিপক্ষে কোনো প্রকার আত্মতৃপ্তিতে না ভুগতে বাংলাদেশ খেলোয়াড়দের সতর্ক করে দিয়েছেন প্রধান কোচ রাসেল ডমিঙ্গো। আগামীকাল মঙ্গলবার মিরপুরের শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনাল। ম্যাচ শুরু হবে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায়। 

মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন বলে ফেলেছেন যে, সামর্থ্যরে ৬০ ভাগ প্রয়োগ করতে পারলেই আফগানদের হারাতে পারবে টাইগাররা। ওই মন্তব্যে বিরক্তি প্রকাশ করেছেন ডমিঙ্গো। তিনি তার শিষ্যদের স্মরণ করিয়ে দিয়েছেন যে, তারা এখনো পর্যন্ত এই টুর্নামেন্টে সেরা পারফরমেন্স দেখাতে পারেনি। তার মতে, আফগানিস্তানকে হারাতে হলে বাংলাদেশকে শুধু ভালো খেললে চলবে না, বরং অনেক ভালো খেলতে হবে। সুতরাং মাত্র ৬০ শতাংশ দিয়েই তাদেরকে হারানোর চিন্তা করা একেবারেই যাবে না।

মঙ্গলবারের ফাইনাল পূর্ব সংবাদ সম্মেলনে ডমিঙ্গো বলেন, '৬০ ভাগ সামর্থ্য দিয়ে তাদের বিপক্ষে জয় পাবার কথা আমি চিন্তাই করি না। আমাদেরকে খুবই ভালো খেলতে হবে। আমরা যদি ৬০ ভাগ সামর্থ্য দিয়ে খেলি, তাহলে ৫০ ভাগ সামর্থ্য দিয়ে খেলেই আফগানিস্তান আমাদের হারাতে পারবে। এভাবেই আমাদের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতে হবে। আমাদেরকে আরো ভালো করতে হবে। আমরা যদি আমাদের খেলার ধার আরো বাড়াতে না পারি তাহলে, আফগানিস্তান আমাদের হারিয়ে দেবে।'

তিনি বলেন, ছয় ম্যাচের চারটিতেই জয়লাভ করা আফগানিস্তানের বিপক্ষে জয়ের জন্য বাংলাদেশকে দক্ষতা বাড়ানোর পাশাপাশি গভীর মনোযোগ দিতে হবে। ডমিঙ্গো বলেন, 'আমরা জানি আফগানিস্তান ভালো একটি দল। তবে আমরা যদি নিজেদের সেরাটা দিয়ে খেলতে পারি তাহলে যে কোন দলকেই আমরা হারাতে পারবো। সেরাটা দিতে পারলে জয় পাওয়াটা আমাদের জন্য বিস্ময়ের কোন ব্যাপার হবে না। আমাদের জন্য বড় চ্যালেঞ্জ হচ্ছে নিজেদের দক্ষতা সঠিকভাবে প্রয়োগ করতে পারা এবং আফগানিস্তানের মতো দলকে হারানোর ব্যাপারে মনস্থির করতে পারা।'

তার মতে আফগানিস্তানের দুই স্পিনার মুজিব-উর-রহমান এবং রশিদ খানকে নিয়ে শিষ্যদের সতর্ক করে ডমিঙ্গো বলেন, 'মুজিব ও রশিদ দুজনই সেরা স্পিনারের তালিকায় রয়েছেন। তাদের মোকাবেলা করতে গিয়ে অনেক ব্যাটসম্যানকেই ধুঁকতে হয়েছে। দুই জনই বিশ্ব মানের স্পিনার। নেটে আমরা তাদের মোকাবেলার বিষয়ে কিছু কাজ করছি। সেই সঙ্গে মনোযোগ ও ম্যাচ পরিকল্পনাও করে নিচ্ছি। আমরা এখনো ক্রিকেটের সঠিক খেলাটা খেলতে পারিনি। কয়েকটি জায়গায় আমরা ভালো অবস্থায় থাকলেও বাকীগুলোতে আমাদের অবস্থান গতানুগতিক।'

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা