kalerkantho

সোমবার । ১৪ অক্টোবর ২০১৯। ২৯ আশ্বিন ১৪২৬। ১৪ সফর ১৪৪১       

পুরো ম্যাচ পিএসজি সমর্থকদের গালাগাল শুনলেন নেইমার

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ১৫:৫১ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পুরো ম্যাচ পিএসজি সমর্থকদের গালাগাল শুনলেন নেইমার

গোল করে ম্যাচ জেতানোর পর দর্শকদের এভাবেই জবাব দেন নেইমার। ছবি : এএফপি

একসময় চোখের মণি হয়ে বার্সেলোনা থেকে পিএসজিতে এসেছিলেন ব্রাজিল সুপারস্টার নেইমার। কিন্তু এখন তিনি পিএসজি সমর্থকদের দুচোখের বিষ! তার বার্সেলোনায় প্রত্যাবর্তনের নাটকের কারণে বেজায় চটে আছে সমর্থকেরা। গ্রীষ্মকালীন দলবদলের পালা শেষ হওয়ায় নেইমারের এ যাত্রায় বার্সা গমন হচ্ছে না। তাই পিএসজির হয়েই খেলতে হবে। গতকাল লিগ ওয়ানের চলতি মৌসুমে প্রথমবারের মতো মাঠে নেমে দুয়োধ্বনি আর গালাগাল শুনে কাটাতে হলো পুরোটা সময়!

বেশ কয়েকটি ম্যাচ সাইডবেঞ্চে বসে থেকে ১২৬ দিন পর গতকাল স্ট্রাসবুর্গের বিপক্ষে পিএসজির হয়ে মাঠে নেমেছিলেন নেইমার। এই ১২৬ দিনে হয়ে গিয়েছে অনেক কিছু। বার্সেলোনায় যাওয়ার জন্য নিজের পক্ষে যা যা করা সম্ভব, নেইমার সব করেছেন। তাতে পিএসজির অসম্মান হোক বা না হোক, নেইমার পরোয়া করেননি। এত কিছু করার পরও বার্সায় যাওয়া হয়নি। ইউরোপীয় ফুটবলে ক্লাবের অসম্মান মানে সমর্থকদের মাথায় রক্ত উঠে যাওয়া। আপনি যত বড় ফুটবলারই হোন না কেন, ক্লাবের অসম্মান মেনে নেবে না সমর্থকেরা।

যে কারণে গতকালের ম্যাচে পিএসজি সমর্থকেরা প্রকাশের অযোগ্য ভাষায় গালাগালিতে ভরা ব্যানার লিখে মাঠে এনেছিলেন। ম্যাচে যখনই নেইমারের পায়ে বল যাচ্ছিল, দর্শকেরা দুয়ো দিয়েছেন, চিৎকার করে গালি দিয়েছেন। নেইমারের আসলে কিছু করার ছিল না। নীরবে সব শুনে গেছেন। তবে ম্যাচের শেষ মুহূর্তে বাইসাইকেল কিকে চোখ ধাঁধানো গোল করে দিয়েছেন এসব লাঞ্ছনার জবাব। একেবারে শেষ মিনিটের ওই গোলে জয় পায় পিএসজি। তাদের সমর্থকেরাও অনেকটা শান্ত হয়। তবে আরও অনেকদিন যে নেইমারকে এসব গালাগাল শুনে যেতে হবে তা বলার অপেক্ষা রাখে না।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা