kalerkantho

জানুয়ারির নতুন চুক্তিতেও থাকবেন মাশরাফি!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২২ আগস্ট, ২০১৯ ২১:৩১ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



জানুয়ারির নতুন চুক্তিতেও থাকবেন মাশরাফি!

জাতীয় দলের চলমান কন্ডিশনিং ক্যাম্পেও অংশ নিয়েছেন মাশরাফি। ছবি : বিসিবি

জাতীয় ওয়ানডে দলের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজার অবসর গ্রহণ নিয়ে বেশ জলঘোলা হচ্ছে কয়েকদিন ধরে। বিশ্বকাপের পরই তার অবসর গ্রহণের কানাঘুষা শোনা গেলেও এখনও তিনি জাতীয় দলের অধিনায়ক। সেইসঙ্গে কাজ করছেন রাজনীতির মাঠে। সেপ্টেম্বরে তার জন্য বিসিবির পক্ষ থেকে একটি বিদায়ী সিরিজ আয়োজনের উদ্যোগ নেওয়া হলেও বাতিল হয়েছে। কারণ মাশরাফি দুই মাস সময় চেয়েছেন। এবার জানা গেল, জানুয়ারি থেকে ক্রিকেটারদের নতুন বেতন কাঠামোর চুক্তিতেও রাখা হবে ম্যাশকে।

মাশরাফির বিদায়ী ম্যাচ আয়োজন নিয়ে সম্প্রতি তার সঙ্গে কথা বলেন বিসিবি প্রধান নাজমুল হাসান পাপন। বোর্ড প্রধানের সঙ্গে আলাপচারিতায় আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েন ম্যাশ। তিনি দুই মাস সময় চান ক্রিকেটকে বিদায় বলার জন্য। বিসিবিও বিনা বাক্যব্যয়ে মেনে নিয়েছে দেশের সবচেয়ে সফল এই অধিনায়কের কথা। এখন বোর্ডের অবস্থান হলো, মাশরাফি যখনই বোর্ডকে জানাবে, তাকে আনুষ্ঠানিকভাবে বিদায়ী সংবর্ধনা দেওয়া হবে। এমনটাই নিশ্চিত করেছেন ক্রিকেট অপারেশন্স চেয়ারম্যান আকরাম খান।

শুধু এটুকুই নয়; মাশরাফিকে  জানুয়ারি থেকে ক্রিকেটারদের নতুন বেতন কাঠামোর চুক্তিতেও অন্তর্ভূক্ত করা হবে। এদিকে মাশরাফিকে বিদায় দেওয়া নিয়ে বেশ আলোচনা করছেন ভক্তরা। দেশের কোনো সফল ক্যাপ্টেন ভালো বিদায় নিতে পারেনি; তাই প্রিয় অধিনায়কের রাজসিক বিদায় চান তারা। ভক্তদের এমন চাওয়ার সঙ্গে সঙ্গতি রেখেই আকরাম খান গণমাধ্যমকে বলেছেন, 'পাপন ভাই মাশরাফির সঙ্গে প্রায় আধা ঘণ্টার মতো কথা বলেছে। ও যখনি বিদায় নেবে আমরা তাকে সেই সম্মানটা দেব।'

এর আগে গত শনিবার বিসিবি প্রধান নাজমুল হাসান পাপন বলেন, 'আমরা জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে একমাত্র ওয়ানডে ম্যাচ আয়োজন করব কিনা সেটা জানতে চেয়েছিলাম। তবে সে (ম্যাশ) বলেছে, যেহেতু ২০২০ সালের মার্চের আগে বাংলাদেশ দলের কোনো ওয়ানডে সিরিজ নেই; তাই এটা খুব তাড়াতাড়ি হয়ে যাচ্ছে। মাশরাফি বলেছে, এই মুহূর্তে তার জন্য কোনো সিরিজ আয়োজন না করাটাই ভালো হবে। অবসরের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে তার দুই মাস সময় প্রয়োজন বলে সে জানিয়েছে। আমরা এটা মেনে নিয়েছি।'

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা