kalerkantho

শনিবার । ২০ জুলাই ২০১৯। ৫ শ্রাবণ ১৪২৬। ১৬ জিলকদ ১৪৪০

অস্ট্রেলিয়াকে বিদায় করে ফাইনালে ইংল্যান্ড

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১১ জুলাই, ২০১৯ ২২:২২ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



অস্ট্রেলিয়াকে বিদায় করে ফাইনালে ইংল্যান্ড

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ৮ উইকেটের বড় জয় পেয়ে ফাইনাল নিশ্চিত করেছে ইংল্যান্ড। আগামী ১৪ জুলাই ঐতিহাসিক লর্ডসে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ফাইনালে লড়বে মরগানবাহিনী। তাই এবার নতুন বিশ্বচ্যাম্পিয়ন দেখতে যাচ্ছে ক্রিকেট বিশ্ব।

বার্মিংহ্যামের এজবাস্টনে দ্বিতীয় সেমিফাইনালে টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন অজি দলপতি অ্যারন ফিঞ্চ। ৪৯ ওভারে সব উইকেট হারিয়ে অজিরা তোলে ২২৩ রান। স্রোতের বিপরীতে একাই লড়েছেন স্টিভ স্মিথ। জবাবে ইংলিশ ওপেনার জেসন রয়ের দারুণ ব্যাটিংয়ে ৩২.১ ওভারে দুই উইকেট হারিয়ে জয়ের বন্দরে পৌঁছে ইংল্যান্ড। হাতে ছিল আরো ১০৭ বল।

এদিন ব্যাটিংয়ে নেমেই মহাবিপদে পড়ে বর্তমান বিশ্বচ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়া। দলীয় ৪ রানে অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চকে (০) লেগ বিফোর উইকেটের ফাঁদে ফেলেন পেস বোলিং সেনসেশন জোফরা আর্চার। স্কোরবোর্ডে আর ৬ রান যোগ হতে না হতেই ক্রিস ওকসের বলে জনি বেয়ারস্টোর তালুবন্দি হন বিধ্বংসী ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার (৯)। দলীয় ১৪ রানে ক্রিস ওকসের বলে বোল্ড হয়ে যান পিটার হ্যান্ডসকম্ব (৪)।

মাত্র ১৪ রানে ৩ উইকেট হারানোর পর ১০৩ রানের জুটি গড়েছিলেন অস্ট্রেলিয়ার সাবেক অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথ এবং অ্যালেক্স কোরি। দারুণ জমে গিয়েছিল জুটি। কিন্তু আবারও জোড়ায় জোড়ায় উইকেট পতন। ৭০ বলে ৪৬ রান করা কোরিকে ফিরিয়ে জুটি ভাঙেন আদিল রশিদ। তিন বল পরেই 'ডাক' মেরে ফিরেন মার্কাস স্টোয়নিস। এরপর ৭২ বলে হাফ সেঞ্চুরি তুলে নেন স্টিভেন স্মিথ।

বাকীদের যাওয়া আসার মধ্যে সাবেক অধিনায়ক একাই লড়াই করে ১১৯ বলে ৬ বাউন্ডারিতে ৮৫ রান করেন। ২০১ মিনিট উইকেটে ছিলেন স্মিথ। শেষদিকে গ্লেন ম্যাক্সওয়েলের ২২ এবং মিচেল স্টার্কের ২৯ রানে ভর করে দুইশ পার করে অস্ট্রেলিয়া। মার্ক উডের বলে জেসন বেহেরনডর্ফ (১) বোল্ড হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ৪৯ ওভারে ২২৩ রানে অল-আউট হয়ে যায় অস্ট্রেলিয়া। ক্রিস ওকস নিয়েছেন ২০ রানে ৩ উইকেট। ৫৪ রানে ৩ উইকেট নিয়েছেন আদিল রশিদ। জোফরা আর্চারের শিকার ২ উইকেট।

২২৪ রানের টার্গেটে ব্যাটিংয়ে নেমে ইংলিশ দুই ওপেনার জনি বেয়ারস্টো এবং জেসন রয় তুলে নেন ১২৪ রান। ১৮তম ওভারে মিচেল স্টার্কের বলে এলবির ফাঁদে পড়েন বেয়ারস্টো। রিভিউ নিয়েও বাঁচতে পারেননি তিনি। তার আগে ৪৩ বলে পাঁচটি চারের সাহয্যে বেয়ারস্টো করেন ৩৪ রান। আর এই উইকেট নেওয়ার মধ্যদিয়ে বিশ্বকাপের এক আসরে সর্বোচ্চ ২৭টি উইকেট নেওয়ার রেকর্ড গড়েন অজি পেসার স্টার্ক। এর আগে বিশ্বকাপের এক আসরে সর্বোচ্চ ২৬টি উইকেট নিয়ে চূড়ায় বসেছিলেন অজি কিংবদন্তি পেসার গ্লেন ম্যাকগ্রা।

দলীয় ১৪৭ রানের মাথায় ‘বিতর্কিত’ এক ক্যাচে বিদায় নেন জেসন রয়। তার আগে ৬৫ বলে ৯টি চার আর ৫টি ছক্কায় করেন ৮৫ রান। তিন নম্বরে নামা জো রুট ৪৬ বলে আটটি চারে ৪৯ রান করে অপরাজিত থাকেন। চার নম্বরে নামা দলপতি ইয়ন মরগান ৩৯ বলে আটটি চারে ৪৫ রান করে অপরাজিত থাকেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা