kalerkantho

সোমবার । ২২ জুলাই ২০১৯। ৭ শ্রাবণ ১৪২৬। ১৮ জিলকদ ১৪৪০

চার উইকেট হারিয়ে চাপে নিউজিল্যান্ড

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৯ জুন, ২০১৯ ২২:৩৯ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



চার উইকেট হারিয়ে চাপে নিউজিল্যান্ড

বৃষ্টিস্নাত ম্যাচে টসে হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে নিউজিল্যান্ডকে ২৪২ রানের টার্গেট দিয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা। বৃষ্টির কারণে ৪৯ ওভারে নেমে আসা ম্যাচে ৬ উইকেট হারিয়ে ২৪১ সংগ্রহ করে দক্ষিণ আফ্রিকা। এদিকে ২৪২ রানের লক্ষে ব্যাটিংয়ে নেমে ১৮ ওভার তিন বলে চার উইকেট হারিয়ে ৮০ রান করেছে নিউজিল্যান্ড।

খেলতে নেমে শুরুতেই ধাক্কা খায় নিউজিল্যান্ড। তবে ধাক্কা সামলে এগিয়ে যেতে থাকে নিউজিল্যান্ড দল। ১৩ ওভারে নিউজিল্যান্ডের সংগ্রহ এক উইকেটে ৫৮ রান হয়। গাপটিল আর উইলিয়ামসন ভালোই এগিয়ে যাচ্ছিলেন। কিন্তু ছন্দপতন ঘটতে সময় লাগেনি। রান ৮০ হতেই আরো তিন উইকেট পড়ে যায়।

আজকের এই ম্যাচে অবশ্যই জিততে হবে দক্ষিণ আফ্রিকাকে। হারলেই বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে যেতে হবে তাদের। জিতলে টিকে থাকবে সম্ভাবনা। এমন ম্যাচেই কি না টস হারতে হলো প্রোটিয়া অধিনায়ক ফ্যাফ ডু প্লেসিকে। টস হেরে প্রথমে ব্যাট করার আমন্ত্রণ পেলেন প্রতিপক্ষ কিউই অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসনের কাছ থেকে

কয়েকদিনের টানা বৃষ্টির কারণে এদিন নির্ধারিত সময়ে মাঠ খেলার উপযোগী করতে পারেনি মাঠকর্মীরা। তাই শুরুতে প্রায় দেড় ঘণ্টা পর অনুষ্ঠিত হয় টস। তাতে ম্যাচের দৈর্ঘ্যও কমে আসে। ৪৯ ওভারে নির্ধারণ করা হয় খেলা। আর টস হেরে প্রথমে ব্যাট করতে নামে দক্ষিণ আফ্রিকা। দলীয় ৯ রানেই ইনফর্ম ব্যাটসম্যান কুইন্টন ডি কককে হারিয়ে চাপে পরে দলটি।

ব্যাটিংয়ে নেমে অবশ্য শুরুটা ভালো হয়নি দক্ষিণ আফ্রিকার। দলীয় ৯ ও ব্যক্তিগত ৫ রানে ট্রেন্ট বোল্টের বলে বোল্ড হন ওপেনার কুইন্টন ডি কক। পরে ব্যক্তিগত ২৩ রান করে লকি ফার্গুসনের বলে বোল্ড হয়ে মাঠ ছাড়েন অধিনায়ক ডু প্লেসিস। তবে হাশিম আমলার ফিফটিতে দলীয় শতকের দেখা পায় প্রোটিয়ারা। মিচেল স্যান্টনারের বলে ৫৫ রান করে বোল্ড হন এই তারকা ব্যাটসম্যান। ৮৩ বলে ৪টি বাউন্ডারির সাহায্যে নিজের ইনিংস সাজান তিনি।

পঞ্চম উইকেট জুটিতে অবশ্য কিছুটা খোলস ছেড়ে বেড়িয়ে আসার চেষ্টা করে দলটি। ৭৪ বলে ৭৪ রানের জুটি গড়েন ভ্যান ডার ডুসান ও ডেভিড মিলার। তবে এ জুটি ভাঙার পর খুব বেশি আগাতে পারেনি দলটি। ফলে নির্ধারিত ৪৯ ওভারে ৬ উইকেটে ২৪১ রান নিয়ে সন্তুষ্ট থাকতে হয় দলটিকে।

কিউইদের হয়ে ১০ ওভারে ৫৯ রান দিয়ে ৩ ‍উইকেট নিয়েছেন ফার্গুসন। একটি করে উইকেট শিকার করেছেন বোল্ট, কলিন ডি গ্রান্ডহোম ও স্যান্টনার।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা