kalerkantho

শনিবার । ০৭ ডিসেম্বর ২০১৯। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ৯ রবিউস সানি ১৪৪১     

সমালোচনাকে পারিবারিক পর্যায় নেবেন না: মালিক

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৮ জুন, ২০১৯ ২০:৪৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সমালোচনাকে পারিবারিক পর্যায় নেবেন না: মালিক

বিশ্বকাপ বা সাধারণ কোনো আন্তর্জাতিক ম্যাচ হোক ভারত-পাকিস্তান মুখোমুখি হওয়া মানেই যেন মহারণ। তবে এই মহারণের আগে বিভিন্ন আলোচনা আর সমালোচনার মধ্যে চলে আসে ভারতের জামাই বাবু শোয়েব মালিক। তার নামের সাথে জড়িয়ে আলোচনায় আসেন পাকিস্তানের বউ সানিয়া মির্জা। এ যেন নিয়মে পরিণত হয়ে গেছে। কে কোন দলের সমর্থন করবে? স্বামীর দেশ? নাকি বাবার দেশ? ইত্যাদি প্রশ্ন।

এবার বিশ্বকাপে ভারত-পাকিস্তান মুখোমুখি হওয়ার আগেই অবশ্য সানিয়া জানিয়ে দিয়েছিলেন তিনি ভারতেরই সমর্থন করবেন। আর মালিক মাঠে থাকবে পাকিস্তানের খেলোয়াড় হয়ে সেটা সবার জানা। তাই এই খেলা নিয়ে বাড়াবাড়ি রকমের মন্তব্য না করতেও অনুরোধ জানান সানিয়া।

ভারতের কাছে ৮৯ রানে হারেরর পর যখন প্রবল সমালোচনা মুখে পড়তে হচ্ছে পাকিস্তান দলকে। তখন শোয়েব মালিক আরো বেশি সমালোচনার মুখে পড়েছেন এক ভাইরাল ভিডিওর কারণে।

ভাইরাল ভিডিওটিতে দেখা যায়, স্ত্রী সানিয়া মির্জার সঙ্গে পার্টি করতে ব্যস্ত শোয়েব। ফ্যান এবং সংবাদ মাধ্যমের দাবি সেই ভিডিও ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের আগের রাতের।

আইএএনএসের তথ্য অনুযায়ী পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড এসব গুজবকে ভুল বলে উড়িয়ে দিয়েছে। যেথানে তারা জানিয়েছে প্লেয়াররা দলের কোনো নিয়ম ভঙ্গ করেননি। শোয়েব মালিকও এই নিয়ে মুখ খুলেছেন।

পিসিবির সেই রিপোর্ট দিয়ে শোয়েব মালিক একটি টুইট করেছেন। সেখানে তিনি লেখেন, কখন পাক মিডিয়া তাদের বস্তুনিষ্ঠ দায়িত্ব পালন করবে! ২০ বছরের বশি সময় ধরে দেশের ক্রিকেটের সঙ্গে রয়েছি। এই ভিডিওগুলো ১৩ জুনের, ১৫ জুনের নয়।

শোয়েব মালিককে সব থেকে বেশি সমালোচনার মুখে পড়তে হয়েছে। কারণ তিনি চূড়ান্ত ব্যর্থ হয়েছেন ভারতের বিরুদ্ধে। তিনি শেষ পর্যন্ত অনুরোধ করতে বাধ্য হয়েছেন, যাতে তাদের পরিবারকে এই সবের থেকে বাইরে রাখা হয়।

উল্লেখ্য, বিশ্বকাপে সবশেষ ম্যাচে ভারতের কাছে ৮৯ রানে হারের পর থেকে প্রবল সমালোচনার মুখে পড়তে হচ্ছে পাকিস্তানের ক্রিকেটারদের। ওই ম্যাচে শোয়েব মালিকের প্রথম বলেই আউট হওয়ার কারণেই সর্মকদের এমন তোপের মুখে পড়েছেন মালিক।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা