kalerkantho

বুধবার । ২৪ জুলাই ২০১৯। ৯ শ্রাবণ ১৪২৬। ২০ জিলকদ ১৪৪০

'মাস্ট উইন' ম্যাচে বাংলাদেশকে সমীহ করতে বললেন লয়েড

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৬ জুন, ২০১৯ ২০:৩৬ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



'মাস্ট উইন' ম্যাচে বাংলাদেশকে সমীহ করতে বললেন লয়েড

চলতি বিশ্বকাপে তারা হয়তোবা এ পর্যন্ত মাত্র একটি ম্যাচ জিতেছে। তবে কিংবদন্তি ক্লাইভ লয়েডের বিশ্বাস, বিশ্বকাপ জয়ের জন্য প্রয়োজনীয় ব্যাটিং-বোলিং সব শক্তিই ওয়েস্ট ইন্ডিজের আছে। ওয়েস্ট ইন্ডিজ চার ম্যাচে এ পর্যন্ত একটিতে জয়ী হয়েছে, দুটিতে পরাজিত হয়েছে এবং একটি বৃষ্টির কারণে পরিত্যক্ত হয়েছে। তবে ১৯৭৫ ও ১৯৭৯ বিশ্বকাপ জয়ী অধিনায়ক লয়েড স্বীকার করেন যে, লড়াইয়ে ফেরা এবং নিজেদের প্রমাণের জন্য উইন্ডিজের এটাই সঠিক সময়।

সোমবারের ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজের চেয়ে বাংলাদেশকেই এগিয়ে রাখছেন লয়েড। তিনি বলেন, 'আগামীকাল সোমবারের ম্যাচে বাংলাদেশকে হালকাভাবে নেয়া যাবেনা। কেননা সম্প্রতি ত্রিদেশীয় সিরিজে তারা ওয়েস্ট ইন্ডিজকে তিন ম্যাচে হারিয়েছে। এই টুর্নামেন্টে ইতোমধ্যেই তারা দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারিয়েছে এবং ইংল্যান্ডের বড় সংগ্রহের বিপক্ষেও তারা শুরুটা বেশ ভালো করেছিল।'

তিনি আরও বলেন, 'ওয়েস্ট ইন্ডিজকে অবশ্যই জেগে উঠতে হবে এবং বাংলাদেশকে সমীহ করতে হবে। উভয় দলের জন্যই এটা মাস্ট উইন ম্যাচ। বাংলাদেশ নিজেদের খেলা সম্পর্কে খুব ভালো জানে এবং এখন ওয়েস্ট ইন্ডিজকে দাঁড়াতে হবে এবং বাংলাদেশকে হিসেব করতে হবে।'

আইসিসির ওয়েবসাইটে এক কলামে লয়েড লিখেছেন, 'সেমিফাইনালে যেতে হলে একটা দলকে সম্ভবত ১১ পয়েন্ট দরকার হবে এবং এখনো নিউজিল্যান্ড এবং ভারতের মত দলের বিপক্ষে তাদের ম্যাচ বাকি আছে তাই এখনো সব সম্ভাবনা শেষ হয়ে যায়নি। এমন ধরনের একটা টুর্নামেন্টে পরাজয় এবং খারাপ দিন সব সময়ই থাকে এবং এখন আমাদের কেবল আশা করতে হবে যে, টুর্নামেন্টের শেষ পর্যন্ত যেতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের সব কিছুই আছে। সেমিফাইনালে যেতে হলে গ্রুপ পর্বে এখন থেকে তাদের প্রায় সব ম্যাচেই জিততে হবে।'

ইংল্যান্ডের কাছে পরাজয়টা অনেক বড় কিছু মনে করছেন ৭৪ বছর বয়সী লয়েড, 'ওই ম্যাচটা ছিল খারাপ সময় এবং টুর্নামেন্টে এ পর্যন্ত তাদের সবচেয়ে খারাপ ব্যাটিং প্রদর্শন। আপনি যদি ইংল্যান্ডের অতীতের সেরা বোলিং আক্রমণ দেখেন তবে জো রুটের মত একজন খণ্ডকালীন বোলারকে আপনার উইকেট বিলিয়ে দিতে পারেন না।'

ক্যারিবিয় দলের তরুণ তারকা শিমরোন হেটমায়ার এবং নিকোলাস পুরনা তাকে মুগ্ধ করেছে উল্লেখ করেন লয়েড। ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাবেক এই অধিনায়ক বলেন, 'নির্দিষ্ট করে টুর্নামেন্টে এ পর্যন্ত পুরান সত্যিই আমাকে মুগ্ধ করেছে। তবে আমাদের কবলমাত্র দুজন তরুণ ভাল করলে চলবেনা। বাকি ব্যাটসম্যানদেরও সাউদাম্পটনে ভালো করার সুযোগ ছিল। কিন্তু কিন্তু তারা সেটা করতে পারেনি। ওয়েস্ট ইন্ডিজ ব্যাটিং লাইনে অনেক শক্তি আছে যারা হয়তোবা নক করতে পারছে না। আমার খেলোয়াড়ী জীবনে আমাদের ল্যারি গোমেজ ছিল, যিনি ঐ ভুমিকাটা পালন করতে পারেন।'

মন্তব্য