kalerkantho

মঙ্গলবার। ১৬ জুলাই ২০১৯। ১ শ্রাবণ ১৪২৬। ১২ জিলকদ ১৪৪০

ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ না হলে ১৩৮ কোটি রুপির ক্ষতি!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৫ জুন, ২০১৯ ১৫:০২ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ না হলে ১৩৮ কোটি রুপির ক্ষতি!

ফাইল ছবি

শুধু বিশ্বকাপ নয়, গোটা ক্রিকেট বিশ্বেরই "হটকেক" ম্যাচ বললে নির্দ্বিধায় ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের নাম বলা যাবে। রাজনীতির সীমা ছাড়িয়ে মাঠেও দারুন উত্তাপ ছড়ানো ম্যাচ নিয়ে পাল্টাপাল্টি বিজ্ঞাপন ইতোমধ্যে শুরু হয়ে গেছে। বৃষ্টির কারনে আগামীকাল ম্যানচেস্টারে অনুষ্ঠিতব্য ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ যদি পরিত্যক্ত হয়ে যায় তাহলে শুধু দর্শক নয়, বিজ্ঞাপনদাতাদের গুনতে হবে বিশাল অংকের ক্ষতি। 

ম্যানচেস্টারে আগামীকাল রবিবার ভারত-অয়াকিস্তান ম্যাচ নিয়ে বাসা বেঁধেছে বৃষ্টির শঙ্কা। যদি শেষ পর্যন্ত এই ম্যাচটি না হয়, মাঠে খেলা দেখতে আসা সমর্থকরা অবশ্যই বিশাল হতাশা নিয়েই বাড়ি ফিরবেন। তবে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিটা হবে বিজ্ঞাপনদাতাদের। ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, কালকের ম্যাচ পরিত্যক্ত হলে প্রায় ১৩৮ কোটি রুপি ক্ষতি হবে বিজ্ঞাপনদাতাদের!

এবারের ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ নিয়ে শুরু থেকেই ছিল শঙ্কা। কাশ্মীরের পুলওয়ামার সীমান্তে সন্ত্রাসী হামলার পর বিশ্বকাপে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ বয়কটের আভাস দিয়েছিল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড। এমনকি আইসিসি যাতে পাকিস্তানকে বাদ দেয় সেজন্যেও প্রস্তাব দিয়েছিল বিসিসিয়াই। শেষ পর্যন্ত আইসিসির হস্তক্ষেপে ম্যাচ ঠিক হলেও বৃষ্টির বাঁধায় আবার ম্যাচ নিয়ে শঙ্কার কালো মেঘ দেখা যাচ্ছে। বৃষ্টির কারণে এই বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত চারটি ম্যাচ পরিত্যক্ত হয়েছে। আগামীকাল ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের ভেন্যু ম্যানচেস্টারেও বৃষ্টির পূর্বাভাস আছে।

মোটামুটি নিশ্চিতভাবে বলা যায়, কাল যদি ম্যাচ না হয়, টিভি চ্যানেলে বিজ্ঞাপন দেওয়া সংস্থাগুলোর বড় অংকের ক্ষতি হয়ে যাবে। সব মিলিয়ে আনুমানিক প্রায় ১৩৮ কোটি রুপির লোকসান গুনতে হবে বিজ্ঞাপনদাতাদের! বৃষ্টি নিয়ে তাই সবচেয়ে বেশি দুশ্চিন্তায় আছেন তারাই। ধারণা করা হচ্ছে, বিশ্বকাপে সবচেয়ে বেশি দেখা হবে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ। এই ম্যাচের জন্য তাই বিজ্ঞাপনের দামও বেড়ে গেছে। অন্য যেকোনো সময়ে যখন প্রতি সেকেন্ডে দুই লাখ রুপির আশেপাশে রাখা হয়, ভারত-পাকিস্তান ম্যাচে সেই দাম আড়াই লাখ রুপিও ছাড়াচ্ছে। সব মিলিয়ে ম্যাচের সময় প্রায় ৫৫০০ সেকেন্ডের বিজ্ঞাপন দেখানোর কথা স্টার স্পোর্টস চ্যানেলের। বিজ্ঞাপনের মূল্য এত চড়া হলেও বিজ্ঞাপনদাতারা ইতোমধ্যেই নিজেদের বিজ্ঞাপন বুকিং দিয়ে রেখেছেন। কোকা-কোলা, উবার, অ্যামাজন, ওয়ান প্লাস, এমআরএফের মতো বড় সংস্থাগুলোর বিজ্ঞাপনই থাকবে সবচেয়ে বেশি। 

ভারতের মিডিয়া এজেন্সি ক্যারাট ইন্ডিয়ার প্রধান নির্বাহী ভিনিতা পাচিসিয়া জানিয়েছেন, বৃষ্টির আশঙ্কা থাকলেও যারা শেষ মুহূর্তে বিজ্ঞাপনের বুকিং দিচ্ছেন, তাদের খরচটা বেড়ে যাচ্ছে আরও। 

যদি বিজ্ঞাপনের স্লট খালি থাকে, তাহলে শেষ মুহূর্তে সেটা ৫০-৫৫ শতাংশ বেশি দামে বিক্রি হবে বলে আমাদের আশা'- জানান ভিনিতা। 

উল্লেখ্য, ভারত পাকিস্তান ম্যাচ দেখতে মুখিয়ে থাকে গোটা ক্রিকেট বিশ্ব। ক্রিকেট সমর্থকদের মত তাই বিজ্ঞাপনদাতারাও এখন একই প্রার্থনা করছেন নিশ্চয়ই। আগামীকাল যেন অন্তত খেলাটা হয়!

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা