kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৫ জুন ২০১৯। ১১ আষাঢ় ১৪২৬। ২২ শাওয়াল ১৪৪০

'বোলাররা আমাকে ভয় পায়; কিন্তু ক্যামেরার সামনে স্বীকার করে না'

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৩ মে, ২০১৯ ১৫:৫৫ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



'বোলাররা আমাকে ভয় পায়; কিন্তু ক্যামেরার সামনে স্বীকার করে না'

সম্ভবত ক্যারিয়ারের শেষ বিশ্বকাপ খেলতে যাচ্ছেন 'ক্যারিবিয়ান দানব' ক্রিস গেইল। এই বিধ্বংসী ব্যাটসম্যান মনে করেন, সব বোলারই এখনও তাকে ভয় পায়। এবং মজা করে জুড়ছেন, ‘অবশ্য ক্যামেরার সামনে ওরা সেটা স্বীকার করে না। সঙ্গে এটাও মানছেন, কম বয়সীদের বিপক্ষে এখন আর আগের মতো অনায়াসে যে কোনো ম্যাচ তিনি খেলে দিতে পারেন না। সেইসঙ্গে এখনও তিনি কীভাবে বিধ্বংসী ফর্ম ধরে রেখেছেন- এই বহুল উত্থাপিত প্রশ্নেরও জবাব দিয়েছেন গেইল।

ইংল্যান্ডে ক্যারিবিয়ান মহাতারকা এবার পঞ্চম বিশ্বকাপ খেলবেন। ১৯৯৯ সালে থেকে তিনি বিশ্বকাপ খেলছেন। সম্প্রতি এক সাক্ষাতকারে তিনি বলেন, 'নতুনরা হালফিলে দারুণ চ্যালেঞ্জের সামনে ফেলে দিচ্ছে। ব্যাপারটা এক সময় যতটা সহজ ছিল, এখন আর ততটা নেই। আজকাল অত তাড়াতাড়ি যা ইচ্ছে তাই করতে পারি না। আগে যা পারতাম।'

এত কিছু বলেও প্রায় হুঙ্কার দিয়ে তিনি বলেন, 'তবু আজও বোলাররা সবাই আমাকে ভয় পায়। ওরা জানে 'ইউনিভার্স বস' কী করতে পারে। এটা মাথায় রেখেই আমার বিপক্ষে সবাই খেলে। নিশ্চয়ই আমাকে দেখে ভাবে, আমিই ভয়ঙ্করতম ব্যাটসম্যান। ক্রিকেট ইতিহাসে কেউ কখনও এত ভয়ঙ্কর ছিল না। অবশ্য ক্যামেরার সামনে এটা স্বীকার করে না। আপনি ওদের কাছে যান না। ওরা কিন্তু বলে দেবে, আমাকে আদৌ আর ভয় পায় না। কিন্তু ওদের মনে কী আছে সেটা আমি ভাল করেই জানি।'

বিশ্বকাপের আগে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে বুধবার প্রস্তুতি ম্যাচ খেলেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। যদিও সেই ম্যাচে তিনি খেলেননি। ম্যাচের আগে সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেন ৩৯ বছরের গেইল। সেখানে তিনি আরও বলেছেন, 'বিশ্বাস করুন এখনও ক্রিকেটটা খেলতে ভালবাসি। বলতে পারেন উপভোগ করি। তা ছাড়া চিরকালই ফাস্টবোলারদের বিরুদ্ধে খেলে আলাদা আনন্দ পেয়েছি। এই আবেগটা কখনও কখনও আমার সেরা খেলাটা বার করে আনে। ব্যাট করার সময় যে কোনও চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হওয়ার জন্য তৈরি থাকি।' 

বছরের শুরুতে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজে দুর্দান্ত খেলে গেইল অবসরের ঘোষণা দিয়েছিলেন। পরে মত পাল্টান। সেই সিরিজে গেইল ৪২৪ রান করেন। গড় ১০৬। মাত্র চার ম্যাচে শুধু ছক্কাই মেরেছিলেন ৩৯টি। সেই সঙ্গে ওয়ানডেতে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত রানও করেন। সেই ইনিংসের সৌজন্যে  সবচেয়ে বড় রানের ইনিংস গড়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। অথচ একটা সময় গেইল প্রায় ৩০ মাস ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে ওয়ানডে খেলেননি। সেটা ২০১৫ সালে বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালে হেরে যাওয়ার পরে।

এখনও ছন্দ ধরে রাখছেন কী করে? এমন প্রশ্নে গেইলের জবাব, 'একটাই কারণ। খেলাটা ভালবাসি। কখনও কখনও খেলোয়াড়েরা বুঝতে পারে না কোন সময় অবসর নেবে। হয়তো আপনি ভাবছেন যে, এই সময় জীবনের সেরা ফর্মে আছেন।  কিন্তু সেটাও সাময়িক। একটা সময় চলে যেতেই হবে। কিন্তু আসল ব্যাপার হচ্ছে খেলাটা উপভোগ করা। যেটা আমার ক্ষেত্রে সত্যি। এখনও ক্রিকেট উপভোগ করি। প্রচুর মজা পাই। বিশেষ করে দারুণ একটা দলের সঙ্গে যখন খেলি।'

মন্তব্য