kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ২৭ জুন ২০১৯। ১৩ আষাঢ় ১৪২৬। ২৩ শাওয়াল ১৪৪০

৩ বিশ্বকাপে স্কোয়াডে থাকলেও খেলা হয়নি কোনো ম্যাচ!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২১ মে, ২০১৯ ১৫:৫০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



৩ বিশ্বকাপে স্কোয়াডে থাকলেও খেলা হয়নি কোনো ম্যাচ!

বিশ্বকাপ খেলা কি আর সবার ভাগ্যে থাকে? খারাপ পারফর্ম করলে তো বাদই; আবার ভালো পারফর্ম করে অনেকে বিশ্বকাপ দলে সুযোগ পান না টিম কম্বিনেশনের জন্য। কিন্তু পাকিস্তানের জুনায়েদ খানের ভাগ্যটা একটু বেশিই খারাপ। বিশ্বকাপে সাধারণত ১৫ সদস্যের দল ঘোষণা করা হয়। যা থেকে সেরা ১১ জন সুযোগ পান মাঠে নামার। জুনায়েদ খান সেই ক্রিকেটারদের একজন, যারা বিশ্বকাপে সুযোগ পেয়েও ডাগ-আউটে বসে থাকেন।

টানা তিন তিন বার বিশ্বকাপ স্কোয়াডে জায়গা করে নিয়েও যদি ডাগ-আউটে বসে থাকতে হয়; এর চেয়ে দুঃখজনক আর কী হতে পারে! পাকিস্তান ক্রিকেট দলের বাঁহাতি পেসার জুনায়েদ খান এই অনুভূতিটা ভালো করে জানেন। কারণ, টানা ৩টি বিশ্বকাপের ১৫ জনের স্কোয়াডে সুযোগ পেয়েও ২২ গজে খেলার সৌভাগ্য হয়নি তার।

২০১১ সালের বিশ্বকাপে মাত্র ২১ বছর বয়সে, আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেকের আগেই সুযোগ পেয়েছিলেন বিশ্বকাপের স্কোয়াডে। সে আসরে পাকিস্তানের দৌড় থেমেছিল সেমিফাইনালে, খেলেছিল ৮টি ম্যাচ। কিন্তু একটি ম্যাচেও নামা হয়নি বাঁহাতি জুনায়েদের। ২০১৫ সালের বিশ্বকাপের স্কোয়াডেও তিনি জায়গা পেয়ে যান। কিন্তু সেবার বাঁধ সাধে ইনজুরি। শেষ মুহূর্তে তার জায়গায় নেয়া হয় রাহাত আলীকে। ফলে তখনো বিশ্বকাপে খেলার স্বপ্নপূরণ হয়নি জুনায়েদের।

সে ঘটনার ৪ বছর পুনরায় দরজায় কড়া নাড়ছে ওয়ানডে বিশ্বকাপ। পাকিস্তান ক্রিকেট দলের অন্যতম সেরা অস্ত্র জুনায়েদ খানকে এবারও স্কোয়াডে রেখেছিল পাকিস্তান। কিন্তু হুট করেই অফফর্মের অজুহাতে বিশ্বকাপের ১০ দিন বাকি থাকতে তাকে বাদ দিয়ে ওয়াহাব রিয়াজকে অন্তর্ভুক্ত করেছে পিসিবি। ফলে টানা তৃতীয়বারের মতো স্বপ্নভঙ্গ হলো জুনায়েদের। এজন্য তিনি মুখে কালো স্কচটেপ লাগিয়ে বোর্ডের বিরুদ্ধে মৌন প্রতিবাদ করেছেন; যা ইন্টারনেটে বেশ সাড়া ফেলে দিয়েছে।


খবরটি ইউনিকোড থেকে বাংলা বিজয় ফন্টে কনভার্ট করা যাবে কালের কণ্ঠ Bangla Converter দিয়ে

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা